• রবিবার, নভেম্বর ১৭, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৪৮ রাত

ব্যাংক কর্মকর্তার হেলমেটের আঘাতে ফাটলো গ্রাহকের মাথা!

  • প্রকাশিত ০১:০৭ দুপুর আগস্ট ২৮, ২০১৯
খুলনা

এলাকাবাসী খবর পেয়ে অভিযুক্তদের আটক করে পুলিশে হস্তান্তর করে

খুলনায় প্রাইম ব্যাংকের কর্মকর্তার মোটরসাইকেল হেলমেটের আঘাতে জাহিদুল ইসলাম আজাদ ওরফে মুন্না নামে এক ঋণগ্রহীতা গ্রাহক আহত হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। আহত জাহিদুলকে গুরুতর অবস্থায় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এঘটনায় পুলিশ খুলনা প্রাইম ব্যাংকের ৪ কর্মকর্তাকে আটক করেছে। বুধবার (২৮ আগস্ট) সকাল সাড়ে দশটার দিনে মহানগরীর সোনাডাঙ্গা থানার মোল্লাবাড়ি এলাকার বিসমিল্লাহ মহল্লায় এঘটনা ঘটে।

সোনাডাঙ্গা থানার এসআই শক্তিপদ মৃধা ঢাকা ট্রিবিউনকে জানান, ফাঁড়ি থেকে ব্যাংকের চারজনকে থানায় আনা হয়েছে। এক কর্মকর্তার হেলমেটের আঘাতে জাহিদুল ইসলাম আজাদ নামে একজন আহত হওয়ার অভিযোগে তাদের আটক করা হয়েছে। আহতকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আটকরা হলেন- প্রাইম ব্যাংক খুলনার লোন শাখার ব্যবস্থাপক গাজী সালাহ উদ্দিন, কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর, বদরুজ্জামান ও পলাশ সাহা।

তবে গ্রাহকের মাথা ফাটানোর বিষয়ে কোনো মন্তব্য না করে ব্যাংক সূত্র জানায়, বিসমিল্লাহ মহল্লা এলাকার বাসিন্দা জাহিদুল ইসলাম আজাদ ওরফে মুন্না (৮০) প্রাইম ব্যাংক খুলনা শাখা থেকে ৫০ লাখ টাকা ঋণ নেন। কিন্তু তিনি ঋণের কিস্তি দিতে গড়িমসি করে আসছিলেন। সকালে ব্যাংকের ঋণ শাখার ব্যবস্থাপক গাজী সালাহ উদ্দিনসহ অভিযুক্তরা কিস্তির টাকা আদায়ের জন্য জাহিদুলের বাড়িতে গেলে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে জাহিদুল অসুস্থ হয়ে পড়েন। এলাকাবাসী খবর পেয়ে ওই ৪ ব্যাংক কর্মকর্তাকে আটক করে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে।