• সোমবার, ডিসেম্বর ০৯, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৫৫ রাত

তিন জেলায় কথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত ৩

  • প্রকাশিত ১১:২৬ সকাল আগস্ট ২৯, ২০১৯
বন্দুকযুদ্ধ
চট্টগ্রামে কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধের’ পর ঘটনাস্থল থেকে র‌্যাব সদস্যরা একে-২২ রাইফেল এবং ৬৩ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে বলে দাবি করেছে। ছবি: ইউএনবি

অজ্ঞাত পরিচয় এই ব্যক্তি সন্ত্রাসী ছিল বলে দাবি করেছে র‍্যাব

দেশের তিন জেলায় পুলিশ ও র‍্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে তিনজন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। নিহতরা অস্ত্র ও মাদক ব্যবসায়ী এবং সন্ত্রাসী বলে দাবি করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। বুধবার (২৮ আগস্ট) দিনগত রাত থেকে বৃহস্পতিবার (২৯ আগস্ট) ভোরের মধ্যে চট্টগ্রাম, গাজীপুর ও কুমিল্লায় এসব ঘটনা ঘটে। খবর বাংলা ট্রিবিউনের। 

চট্টগ্রাম

চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি এলাকায় র‍্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে একজন নিহত হয়েছে। অজ্ঞাত পরিচয় এই ব্যক্তি সন্ত্রাসী ছিল বলে দাবি করেছে র‍্যাব। বৃহস্পতিবার (২৯ আগস্ট) ভোরে ওই উপজেলার ভূজপুর থানার কোঠবাড়িয়া গ্রামের শিকদারপাড়া এলাকায় এঘটনা ঘটে।

র‍্যাব-৭ এর সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মো. মাশকুর রহমান এ তথ্য জানিয়েছেন। এখনও নিহত সন্ত্রাসীর পরিচয় পাওয়া যায়নি বলে তিনি জানান।

মাশকুর রহমান জানান, অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীদের একটি দল ভূজপুর থানার কোঠবাড়িয়া গ্রামে অবস্থান করছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাবের টহল টিম ওই এলাকায় অভিযান চালায়। এসময় র‍্যাব সদস্যদের লক্ষ্য করে অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে র‍্যাবও পাল্টা গুলি ছুড়লে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে একজনের গুলিবিদ্ধ মরদেহ, একটি একে-২২ অস্ত্র ও ৬৩ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

গাজীপুর

গাজীপুরে র‍্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে সুজন মিয়া (৩০) নামে এক যুবক নিহত হয়েছে। বুধবার মধ্যরাতে গাজীপুর মহানগরের সালনা (মোল্লাপাড়া) এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। র‍্যাব ঘটনাস্থল থেকে দুটি শটগান, দুটি ওয়ান শুটার গান, ৯ রাউন্ড কার্তুজ ও ১২০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে। এ সময় র‍্যাবের এক সদস্য আহত হয়েছেন। তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। নিহত সুজন মিয়া গাজীপুর মহানগরের টঙ্গীর আরিচপুর এলাকার মৃত চাঁন মিয়ার ছেলে। র‍্যাব-১ এর সহকারী পরিচালক (এসপি) কামরুজ্জামান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, “নিহত ব্যক্তি একজন অস্ত্র ও মাদক ব্যবসায়ী।” 

তিনি আরও জানান, র‍্যাব গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে সালনার মোল্লাপাড়ায় কয়েকজন যুবক অস্ত্র ও মাদক কেনাবেচা করছে  এ সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাবের একটিটহলদল বুধবার মধ্যরাতে ওই এলাকায় অভিযানে যায়। এ সময় তারা র‍্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছোড়ে। র‍্যাব সদস্যরাও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছুড়লে সুজন মিয়া নামে একজন গুলিবিদ্ধ হয় এবং তারসহযোগীরা পালিয়ে যায়। পরে পুলিশের সহায়তার আহত সুজন মিয়াকে উদ্ধার করে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক প্রণয় ভূষণ দাস জানান, গুলিবিদ্ধ সুজনকে হাসপাতালে মৃত অবস্থায় আনা হয়।

কুমিল্লা

কুমিল্লায় ডিবি পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে রাসেল নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছে। বুধবার রাতে জেলার সদর উপজেলার গোমতী নদীর বেড়িবাঁধ সংলগ্ন এলাকায় এঘটনা ঘটে। পুলিশের দাবি, রাসেল মাদক ব্যবসায়ী ছিল এবং তার নামে কোতোয়ালি থানায় ১০টি মামলা রয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপ গান, একটি রামদা ও সাড়ে পাঁচ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধারের কথাও জানিয়েছে পুলিশ। নিহত রাসেল একই উপজেলার পাঁচথুবী ইউনিয়নের বাগবের গ্রামের হারুন মিয়ার ছেলে।

ডিবি’র ওসি মো. মাঈন উদ্দিন খান জানান, শ্রীপুর এলাকায় কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ী মাদক ভাগাভাগি করছে এমন খবর পেয়ে রাত দেড়টার দিকে ঘটনাস্থলে যায় জেলা ডিবি পুলিশের সদস্যরা। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে মাদক ব্যবসায়ীরা গুলি চালায়। এসময় পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়ে। এতে মাদক ব্যবসায়ী রাসেল গুলিবিদ্ধ হয়। তাকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।