• রবিবার, অক্টোবর ২০, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৩৩ রাত

টাঙ্গাইলে কাউন্সিলরের বাসায় শিশু ধর্ষণের অভিযোগ

  • প্রকাশিত ০৮:৫৫ রাত সেপ্টেম্বর ৩, ২০১৯
ধর্ষণ
প্রতীকী ছবি

কাউন্সিলর হেলার ফকিরের বাসায় ভাড়া থাকতেন ধর্ষণের শিকার শিশুটির পরিবার

টাঙ্গাইল শহরের আকুরটাকুর পাড়ায় প্রথম শ্রেণিতে পড়ুয়া এক শিশু শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। 

১ সেপ্টেম্বর (রবিবার) শহরের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর হেলার ফকিরের বাসায় এ ঘটনা ঘটে। পরে মঙ্গলবার (৩ সেপ্টেম্বর) ধর্ষণের শিকার শিশুটির দাদা বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন। 

পুলিশ সূত্রে ও মামলার বিবরণে জানা যায়, কাউন্সিলর হেলার ফকিরের বাসায় ভাড়া থাকতেন ধর্ষণের শিকার শিশুটির দাদা-দাদি। কাজের সুবাদে শিশুটির বাবা-মা ঢাকায় থাকেন। এই বাসাটির পাশেই বাচ্চু (৫০) নামের এক ব্যক্তি ভাড়া থাকতেন। ঘটনার দিন দুপুরে ওই শিশুটিকে বাসায় একা পেয়ে ধর্ষণ করেন বাচ্চু। এসময় শিক্ষার্থীর চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে বাচ্চু পালিয়ে যান। পরে সোমবার ২ সেপ্টেম্বর রাত ১২টার দিকে চিকিৎসার জন্য শিশুটিকে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। 

এবিষয়ে কাউন্সিলর হেলাল ফকির বলেন, “বিষয়টি আমি জানার পর পারিবারিকভাবে সমাধানের চেষ্টা করি। কিন্তু আসামি পলাতক থাকায় এখনও মিমাংসা করা সম্ভব হয়নি।” 

সদর পুলিশ ফাঁড়ির এসআই আমির হামজা ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “এ ব্যাপারে টাঙ্গাইল সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। মঙ্গলবার টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ওই শিক্ষার্থীর নিরীক্ষার সম্পন্ন হয়েছে। একইসাথে এদিন ২২ ধারায় ওই শিক্ষার্থী আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে। এঘটনায় মামলার একমাত্র আসামি অভিযুক্ত বাচ্চু পলাতক রয়েছেন। তাকে গ্রেফতারের অভিযান চলছে।”