• বুধবার, ডিসেম্বর ১১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:১৮ রাত

ব্যানারে নাম না থাকায় মাইক্রোফোন ভাঙলেন উপজেলা চেয়ারম্যান

  • প্রকাশিত ০৫:৪৮ সন্ধ্যা সেপ্টেম্বর ৬, ২০১৯
জয়পুরহাট

অভিযোগ অস্বীকার করেছেন অভিযুক্ত উপজেলা চেয়ারম্যান

জয়পুরহাটে ব্যানারে নাম না থাকায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান অনুর্ধ-১৭ গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে মাইক্রোফোন ভাঙার অভিযোগ উঠেছে ক্ষেতলাল উপজেলা চেয়ারম্যান মোস্তাকিম মন্ডলের বিরুদ্ধে।

শুক্রবার সকালে উপজেলার ক্ষেতলাল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এই অনাকাঙ্খিত এ ঘটনা ঘটে বলে নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আরাফাত রহমান।

প্রত্যক্ষদর্শীদের সাথে কথা বলে জানা যায়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান অনুর্ধ-১৭ গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের দাওয়াত পত্রে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি হিসেবে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ জাকির হোসেন এবং সভাপতি হিসেবে ক্ষেতলাল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আরাফাত রহমানের নাম উল্লেখ করা হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের ব্যানারেও কোথাও উপজেলা চেয়ারম্যান মোস্তাকিম মন্ডলের নাম উল্লেখ করা হয়নি। এতে ক্ষিপ্ত হন তিনি। পরে তিনি খেলার মাঠে যাওয়ার পর মাইকে তার আগমনী বার্তা দেওয়া হলে তিনি মঞ্চে উঠে মাইক্রোফোন কেড়ে নিয়ে ভেঙে ফেলেন। পরে তিনি খেলা বন্ধের ঘোষণা দিয়ে অনুষ্ঠান থেকে বের হয়ে যান। পরে ইউএনও'র নির্দেশে ফের খেলা শুরু হয়।

এ প্রসঙ্গে ইউএনও আরাফাত রহমান বলেন, হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপনের নির্দেশক্রমেই জেলা প্রশাসককে প্রধান অতিথি করা হয়। যদিও ব্যস্ততার কারণে তিনি আসতে পারেননি। তবে এঘটনায় চেয়ারম্যান সাহেব যে এভাবে প্রতিক্রিয়া দেখাবেন তা ভাবতে পারিনি। মাইক্রোফোন ভেঙ্গে তিনি খেলা বন্ধেরও নির্দেশ দিয়েছিলেন। কিন্তু খেলা চালিয়েছি। ঘটনাটি দুঃখজনক।"

এদিকে এ বিষয়ে জিজ্ঞেস করা হলে উপজেলা চেয়ারম্যান মোস্তাকিম মন্ডল খেলা বন্ধের নির্দেশ দেওয়ার কথা অস্বীকার করে বলেন, "আমার সাথে কোন প্রকার আলোচনা করা হয়নি খেলা নিয়ে। এ জন্য ইউএনও সাহেবকে ফোনও দিয়েছি। কিন্তু ফোন ধরেননি। ব্যানারে নাম দেয়নি ভাল কথা। কিন্তু মাইকে নাম প্রচার করবে কেন? এ জন্য আমি মাইক্রোফোন কেড়ে নিয়েছি। ভেঙ্গে ফেলার অভিযোগ সঠিক নয়।"