• শুক্রবার, ডিসেম্বর ০৬, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৭:৫৬ রাত

রাত না পেরোতেই বেনাপোলে পেয়াজের দাম প্রতি কেজিতে বেড়েছে ৪০ টাকা

  • প্রকাশিত ১১:২৯ সকাল সেপ্টেম্বর ৩০, ২০১৯
পেঁয়াজ
ফাইল ছবি। মেহেদী হাসান/ঢাকা ট্রিবিউন

গতকাল বিকালে প্রতি কেজিতে যে পেঁয়াজ ৫০-৫৫ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছিল রাত না পেরোতেই তা ৯৫-১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে

ভারত সরকার বাংলাদেশে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের ঘোষণা দেওয়ায় সোমবার (৩০ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে বেনাপোল স্থলবন্দরে খুচরা বাজারে পেঁয়াজের দাম প্রতি কেজিতে বেড়েছে ৪০ টাকা। গতকাল বিকালে প্রতি কেজিতে যে পেঁয়াজ ৫০-৫৫ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছিল রাত না পেরোতেই তা ৯৫-১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

সূত্র জানায়, বন্দর দিয়ে রবিবার (২৯ সেপ্টেম্বর) ৪টি ট্রাকে ৮১ মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমদানি হয়েছে। গতকাল বিকালের দিকে ভারতের পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের ঘোষণা আসে। এরপর ভারতের পেট্রাপোল বন্দরের রাস্তার উপর পেয়াজের ট্রাক বাংলাদেশে প্রবেশের জন্য দাঁড়িয়ে থাকলেও ট্রাকগুলো ফিরিয়ে নেওয়া হয়।

সূত্র আরও জানায়, ভারত পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের ঘোষণা দেওয়া মাত্রই বাংলাদেশি আমদানি কারকরা কেজিতে ৫০-৫৫  টাকায় বিক্রি হওয়া পেঁয়াজের দাম ৯০-৯৫ টাকা করে চাচ্ছেন।


আরও পড়ুন : পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধের ঘোষণা ভারতের


খুলনার পেঁয়াজ আমদানি কারক প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা জানান, এক হাজার মেট্রিক টন পেয়াজের এলসি তাদের দেওয়া রয়েছে। চলতি সপ্তাহে তা দেশে ঢোকার কথা ছিল। হঠাৎ ভারত সরকার বাংলাদেশে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে। এখন ওই পেঁয়াজ পাওয়া যাবে কিনা তা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে।

ভারতের পেট্রাপোল সিএন্ডএফ এজেন্ট স্টাফ ওয়েল ফেয়ার এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক শ্রী কার্তিক চক্রবর্তী ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, "বাংলাদেশে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে ভারতের সরকার। এখন পেট্রাপোল বন্দরে ট্রাক বোঝাই যে পেঁয়াজ আছে তা বাংলাদেশে ঢোকানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। কিন্তু নতুন কোন এলসি ভারতের রফতানি কারক প্রতিষ্ঠান নিবে না বলে জানিয়েছে।"