• শুক্রবার, ডিসেম্বর ১৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৫৬ রাত

বাণিজ্যমন্ত্রী : দুই-এক দিনের মধ্যে পেঁয়াজের দাম কমতে শুরু করবে

  • প্রকাশিত ০৪:২৭ বিকেল অক্টোবর ২, ২০১৯
বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি
বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। ফাইল ছবি। মেহেদি হাসান/ঢাকা ট্রিবিউন

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, 'মিয়ানমার থেকে ৪২-৪৩ টাকা কেজিদরে পেঁয়াজ আনা হচ্ছে'

দুই-এক দিনের মধ্যেই পেঁয়াজের দাম কমতে শুরু করবে বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। বুধবার (২ অক্টোবর) সচিবালয়ের নিজ সভাকক্ষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

টিপু মুনশি বলেন, "মিয়ানমার থেকে আজও ৪৮৩ টন পেঁয়াজ টেকনাফে এসে পৌঁছেছে। মিয়ানমার থেকে আজ আরও একটি লট আসবে। সেটির পরিমাণ হবে ৪০০ থেকে ৫০০ টন। প্রতিদিনই মিয়ানমার থেকে পেঁয়াজ আসছে। এছাড়া তুরস্ক থেকেও আসতে শুরু করেছে। কাজেই দুই-এক দিনের মধ্যেই পেঁয়াজের দাম কমতে শুরু করবে।"  

বাণিজ্যমন্ত্রী আরও বলেন, "ভারত প্রথমে পেঁয়াজের দাম বাড়িয়ে দিলো। পরবর্তীতে তারা রফতানি বন্ধ করে দিয়েছে। এই সংবাদে কিছু সুযোগসন্ধানী ব্যবসায়ী পেঁয়াজের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে। কারা কারা এই কাজ করেছে, সে ব্যাপারে খোঁজ নেওয়া হচ্ছে। এর জন্য মনিটরিং টিম কাজ করছে।"

"উৎপাদন বাড়ানো ছাড়া এই পরিস্থিতি থেকে উত্তরণের কোনো পথ নেই। তবে এক্ষেত্রে ক্রেতাদেরও সচেতনতা প্রয়োজন। ভারত পেঁয়াজ রফতানি করবে না, এই সংবাদ পেয়ে ক্রেতারা যেভাবে পেঁয়াজ কিনতে হুমড়ি খেয়ে পড়েছেন, সেটিও অস্বাভাবিক দাম বাড়ার একটি কারণ।"

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, "মিয়ানমার থেকে ৪২-৪৩ টাকা কেজিদরে পেঁয়াজ আনা হচ্ছে। এর সঙ্গে পরিবহন খরচ এবং ব্যবসায়ীদের মুনাফা যুক্ত করে সর্বোচ্চ এর দাম হতে পারে ৫০-৫৫ টাকা। এর বেশি হওয়ার কোনো যৌক্তিক কারণ নেই। ব্যবসায়ীরা যে দাম বাড়িয়েছে, তা পুরোপুরি অযৌক্তিক।"