• বুধবার, অক্টোবর ২৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:২৭ রাত

সোনারগাঁয়ে গার্মেন্টস কর্মীকে গণধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার ৫

  • প্রকাশিত ০১:১২ দুপুর অক্টোবর ৯, ২০১৯
গণধর্ষণ
প্রতীকী ছবি। বিগস্টক।

মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) সোনারগাঁ থানায় এ বিষয়ে মামলা দায়ের করা হলে তাদের গ্রেফতার করা হয়

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলায় এক গার্মেন্টস কর্মীকে গণধর্ষণের অভিযোগে পাঁচজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) সোনারগাঁ থানায় এ বিষয়ে মামলা দায়ের করা হলে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- মজিবুর রাহমানের ছেলে আবু সাঈদ (২৫), নবী হোসেনের ছেলে রনি মিয়া (২০), আবু সিদ্দিকের ছেলে আবুল হোসেন (৩২), মৃত সামসুল হকের ছেলে জাহাঙ্গীর (২৮) এবং মো.বুট্টু মিয়া ছেলে মাসুদ (২২)। এতে জড়িত আরো দুইজন পলাতক রয়েছে। তারা হলেন- আমির হোসেনের ছেলে আরিফ হোসেন (২০) ও সামসুল হকের ছেলে জাহাঙ্গীর হোসেন (২৮)।

মামলার এজাহারে উল্লেখ করেন, “সোমবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে রূপগঞ্জের একটি গার্মেন্টসে কাজ শেষে গাউসিয়া যাওয়ার জন্য একটি সিএনজিতে ওঠেন ভিকটিম। এসময় সামনের সিটে বসা জাহাঙ্গীর কিছুদূর যাওয়ার পর সিএনজি ড্রাইভারকে জোরপূর্বক তালতলার দিকে নিয়ে যেতে বলেন। বাধা দিলে ভিকটিমের মুখে সাদা রংয়ের স্কচটেপ দিয়ে বেঁধে সোনারগাঁ থানাধীন ব্রামনবাওগা এলাকায় জনৈক আ. হালিমের দোচালা টিনের ঘরে নিয়ে যায়। পরে তারা জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। রাত আনুমানিক ৩টার দিকে বাড়ির মালিক এসে বাদীকে উদ্ধার করে।”

সোনারগাঁ থানার অফিসার ইনচার্জ মনিরুজ্জামান বলেন, “গার্মেন্টস কর্মীকে গণধর্ষণের ঘটনায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের হয়েছে। এ ঘটনায় পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।”