• সোমবার, নভেম্বর ১৮, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১২:৫৩ দুপুর

ওবায়দুল কাদের: জাবির বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী অবস্থা বুঝে ব্যবস্থা নেবেন

  • প্রকাশিত ০৯:২০ রাত নভেম্বর ৫, ২০১৯
ওবায়দুল কাদের
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। ফাইল ছবি ফোকাস বাংলা

‘জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নজরে আছে। এর সর্বশেষ খবর তিনি জানেন’

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) উপাচার্যের অপসারণের দাবিতে আন্দোলনসহ বিশ্ববিদ্যালয়টির সার্বিক পরিস্থিতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পর্যবেক্ষণ করছেন বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) দুপুরে রাজধানীর বনানীতে অবস্থিত সেতু ভবনে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা জানান। এর আগে সেতু ভবনের কর্মকর্তাদের সঙ্গে সভা করেন সেতুমন্ত্রী।

ওবায়দুল কাদের বলেন, “জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নজরে আছে। এর সর্বশেষ খবর তিনি জানেন। কোনও ব্যবস্থা নিতে হলে তিনি খোঁজ-খবর নিয়ে তারপর নেবেন। সরকারপ্রধান এ ব্যাপারে খুব সজাগ। তিনি অবস্থা বুঝে ব্যবস্থা নেবেন।”


আরো পড়ুন - ছাত্রলীগের ‘গণঅভ্যুত্থানে’ কৃতজ্ঞ জাবি ভিসি ফারজানা


বেশ কিছু দিন থেকে জাবি উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের অপসারণসহ বিভিন্ন দাবিতে আন্দোলন করছেন শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের একটা অংশ। মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) আন্দোলনরত এই শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের ওপর ছাত্রলীগের হামলার পর বিশ্ববিদ্যালয়টি অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

শিগগিরই শুরু হবে বরিশাল-ভোলা সেতুর কাজ

একই অনুষ্ঠানে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, “দেশের সবচেয়ে দীর্ঘ সেতু হবে বরিশাল-ভোলা সেতু। এর কাজ শিগগিরই শুরু হবে। ইতোমধ্যে সেতুর সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের কাজ শেষ হয়েছে। ডিপিপি প্রণয়নের কাজ চলছে। এই সেতুর দৈর্ঘ্য হবে আট কিলোমিটার, যা পদ্মা সেতুর চেয়েও বড়।”

এ ব্যাপারে ফান্ডিংয়ের কথাবার্তা হচ্ছে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, “চীন এই সেতুতে অর্থায়ন করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে।” বরিশাল-ভোলা সেতুটি পদ্মা সেতুর মতো ডাবল ডেকার হবে না; এটা সড়ক সেতু হবে বলে জানান তিনি।


আরো পড়ুন - জাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের ওপর ছাত্রলীগের হামলা