• বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ১২, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:২৮ সকাল

কিস্তির টাকা দিতে না পেরে হতাশ, স্ত্রীকে হত্যা

  • প্রকাশিত ০৮:২১ রাত নভেম্বর ১৩, ২০১৯
স্ত্রীকে হত্যা
প্রতীকী ছবি।

এক পর্যায়ের গলায় ডিস লাইনের তার পেঁচিয়ে স্ত্রীকে হত্যা করে ঘরের আড়ার সাথে ঝুলিয়ে রাখে

রাজশাহীর চারঘাট উপজেলায় তিন সন্তানের জননী এক গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে স্বামী বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় স্বামী শেখ ওরফে ভোবেশকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার ( ১২ নভেম্বর) দুপুরের দিকে উপজেলার শলুয়া ইউনিয়নের ফতেপুর মন্ডলপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত নাসিমা মন্ডলপাড়া গ্রামের আব্দুল বারেকের ছেলে তুফান শেখ ওরফে ভবেশের স্ত্রী।

বুধবার (১৩ নভেম্বর) নিহত গৃহবধুর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

নিহতের বাবা সিরাজ আলী জানান, তার জামাই তুফান শেখ ওরফে ভবেশ একজন দিনমজুর হওয়ায় প্রায় ৩/৪ বছর থেকে ঋণগ্রস্ত। এই কারণে সংসারে অভাব-অনটন দেখা দেয়। বেশ কয়েকটি এনজিও সংস্থা থেকে ঋণ গ্রহণ করে কিস্তির টাকা দিতে হিমশিম খেত সে। মঙ্গলবার দুপুরের দিকে কিস্তির টাকা নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে কথাকাটাকাটি হলে ভবেশ তার স্ত্রীকে মারপিট করে। এক পর্যায়ের গলায় ডিস লাইনের তার পেঁচিয়ে স্ত্রীকে হত্যা করে ঘরের আড়ার সাথে ঝুলিয়ে রাখে।

বিষয়টি জানতে পেরে চারঘাট মডেল থানায় খবর দিলে পুলিশ মঙ্গলবার দিবাগত রাতে নিহত গৃহবধুর লাশ উদ্ধার করে এবং তার স্বামী তুফান শেখ ওরফে ভোবেশকে গ্রেপ্তার করে।

এ ব্যাপারে নিহত গৃহবধূর বাবা সিরাজ আলী বাদী হয়ে জামাই তুফান শেখকে আসামি করে মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

চারঘাট মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সমিত কুমার কুন্ডু বলেন, “থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের হয়েছে এবং ঘটনার সাথে জড়িত আসামিকে গ্রেপ্তার করে জেল-হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।”