• মঙ্গলবার, এপ্রিল ০৭, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:৫৬ দুপুর

গাজীপুরে মাদ্রাসায় প্রধান শিক্ষকের সন্তানকে শ্বাসরোধে হত্যা, আটক ২

  • প্রকাশিত ১১:৫৮ সকাল জানুয়ারী ২, ২০২০
গাজীপুর মাদ্রাসা
গাজীপুরে মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষকের সন্তানকে হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকায় দুই শিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ ঢাকা ট্রিবিউন

মাদ্রাসার পাশের মাঠে খেলতে গিয়ে নিখোঁজ হয়েছিল শিশুটি

গাজীপুরের কালীগঞ্জে “মরাশ জান্নাতুল বাকী হাফিজিয়া মাদ্রাসা ও এতিমখানা” কম্পাউন্ডে চার বছর বয়সী এক শিশুকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। সে ওই মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষক মুফতি জোবায়ের আহমেদের ছেলে।

স্থানীয়দের সহায়তায় বুধবার (১ জানুয়ারি) রাত নয়টার দিকে তার মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায় পুলিশ। সে ওই মাদ্রাসারই ছাত্র ছিল। এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক জোনায়েত আহমেদ (৩০) ও খাইরুল ইসলামকে (২৫) আটক করেছে পুলিশ।

ঢাকা ট্রিবিউনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কালীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এ কে এম মিজানুল হক।

স্থানীয় বাসিন্দা রিয়াজ উদ্দিন জানান, বুধবার বিকেলে মাদ্রাসার পাশের মাঠে খেলতে গিয়ে নিখোঁজ হয় শিশুটি। সন্ধান না পেয়ে মসজিদের মাইকে তার বিষয়টি জানানো হয়। এরপর স্থানীয়রা মাদ্রাসার পুকুরসহ বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ চালাতে থাকে। ইতোমধ্যে মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক জোনায়েত আহমেদ ও খাইরুল ইসলামের গতিবিধি সন্দেহজনক হলে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। 

জিজ্ঞাসাবাদে তারা শিশুটিকে শ্বাসরোধে হত্যা করার কথা স্বীকার করে। তাদের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, জোনায়েতের কক্ষে কেবিনেটের ড্রয়ার থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

রাত নয়টার দিকে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মর্গে পাঠায় পুলিশ।