• শুক্রবার, ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০২ রাত

উপাচার্যের অপসারণ দাবিতে ফের আন্দোলন কর্মসূচি জাবিতে

  • প্রকাশিত ০৬:৪২ সন্ধ্যা জানুয়ারী ২, ২০২০
জাবি
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট বিশ্ববিদ্যালয় সংসদের সাধারণ সম্পাদক সুদীপ্ত দে। ঢাকা ট্রিবিউন

‘আমরা উপাচার্যকে আর বিশ্বাস করি না, কিন্তু মাননীয় শিক্ষামন্ত্রীর কথার উপর আমরা আস্থা রাখতে চাই’


উপাচার্য অধ্যাপক ড. ফারজানা ইসলামের অপসারণ চেয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) আবারও কর্মসূচি ঘোষণা করেছেন আন্দোলনকারী শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (২ জানুয়ারি) বিকাল চারটায় “দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর” ব্যানারে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের কমনরুমে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তারা এ ঘোষণা দেন।

সংবাদ সম্মেলনে বক্তাদের জানান, তারা এখন তদন্তের উপর আস্থা রাখতে চাচ্ছেন। কিন্তু দৃশ্যমান কোনো অগ্রগতি না দেখলে আবারও কঠোর আন্দোলনের দিকে যাবেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠকালে সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট, বিশ্ববিদ্যালয় সংসদের সাধারণ সম্পাদক সুদীপ্ত দে বলেন, “সকল অনিয়ম ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে নৈতিকভাবে আবারও কর্মসূচি দিতে আমরা বাধ্য হচ্ছি। রাষ্ট্রীয় হস্তক্ষেপের মাধ্যমে যদি এই সমস্যার দ্রুত সমাধান না হয়, রাষ্ট্র যদি এভাবেই নির্লিপ্ততা বজায় রাখে, তাহলে বিশ্ববিদ্যালয় এক গভীর সংকটে নিপতিত হবে, যা কোনভাবেই কাম্য নয়।”


আরও পড়ুন - র‌্যাগিংয়ের দায়ে জাবির ১১ শিক্ষার্থী বহিষ্কার


আন্দোলনকারী শিক্ষক অধ্যাপক খবির উদ্দীন বলেন, “মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী বলেছেন আমাদের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে উপাচার্যের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু হয়েছে। আমরা উপাচার্যকে আর বিশ্বাস করি না, কিন্তু মাননীয় শিক্ষামন্ত্রীর কথার উপর আমরা আস্থা রাখতে চাই।”

এ সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের অপসারণ দাবিতে আগামী ৫ জানুয়ারি একটি বিক্ষোভ মিছিলের ঘোষণা দেন তারা।

প্রসঙ্গত, দুর্নীতির অভিযোগ তুলে গত চারমাস ধরে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য বিরোধী আন্দোলন করে আসছেন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের একাংশ।