• রবিবার, এপ্রিল ০৫, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০৪ রাত

দপ্তরির বিরুদ্ধে তৃতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ

  • প্রকাশিত ০৩:৫১ বিকেল জানুয়ারী ২৩, ২০২০
শিশুদের যৌন নিপীড়নের অনেক ঘটনা সামাজিক ও পারিবারিকসহ নানা কারণে প্রকাশই হয় না
প্রতীকী ছবি: সৌজন্য

দপ্তরির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে শিক্ষা অফিসারকে লিখিতভাবে জানানো হয়েছে

গোপালগঞ্জে তৃতীয় শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে স্কুলের দপ্তরির বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত ব্যক্তির নাম শ্রীধাম বালা। তার বাড়ি কাশিয়ানি উপজেলার শ্রীধাম চাপ্তা গ্রামে।

এই ঘটনায় ভুক্তভোগী ছাত্রীর মা ও ম্যানেজিং কমিটি এবং স্থানীয়রা আলাদাভাবে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসে অভিযোগ দায়ের করেছেন। 

অভিযোগে বলা হয়েছে, গত রবিবার (১৯ জানুয়ারি) ওই ছাত্রী স্কুলে গেলে দপ্তরি শ্রীধাম বালা তার শরীরে আপত্তিকরভাবে হাত দেয়। বিষয়টি এক শিক্ষিকাকে জানায় ওই ছাত্রী। শিক্ষিকা বিষয়টি প্রধান শিক্ষককে জানালে তিনি তাৎক্ষণিকভাবে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে মুঠোফোনের মাধ্যমে বিষয়টি জানান। 

প্রধান শিক্ষক সাব্বির হোসেন বলেন, ‘‘আমি পরে ওই ছাত্রীর কাছ থেকে ঘটনাটি মৌখিকভাবে শুনে লিখিতভাবে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে জানিয়েছি। অভিযুক্ত শ্রীধাম এর আগেও একাধিকবার এমন ঘটনা ঘটিয়েছে।’’

স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মো. কামরুজ্জামান মিনা বলেন, ‘‘দপ্তরির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে শিক্ষা অফিসারকে লিখিতভাবে জানানো হয়েছে। আমরা এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার চাই।’’

তবে অভিযুক্ত শ্রীধাম বালা অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, ‘‘অসাবধানতাবশত ওই ছাত্রীর গায়ে হাত লাগতে পারে। আমি ইচ্ছাকৃতভাবে হাত দেইনি। কিছু লোক শত্রুতা করে আমার বিরুদ্ধে এ ধরনের মিথ্যা অভিযোগ করছে।’’

উপজেলা সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. ওয়াহিদুর রহমান বলেন, ‘‘আমি অভিযোগ পেয়ে স্কুলে গিয়েছি। ইতোমধ্যে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছি। তদন্তে দোষী সাব্যস্ত হলে ওই দপ্তরির বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’’