• মঙ্গলবার, এপ্রিল ০৭, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৯:৪১ রাত

৭ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করলেন ৮৫ বছরের বৃদ্ধ!

  • প্রকাশিত ০৪:২৭ বিকেল ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০২০
ধর্ষণ
প্রতীকী ছবি

শিশুটির চিৎকার ও কান্নার শব্দে পাশের বাড়ির লোকজন গিয়ে তাকে উদ্ধার করে

টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজেলায় সাত বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে ৮৫ বছর বয়সী এক বৃদ্ধকে গ্রেফতার করা হয়েছে। 

সোমবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) এ ঘটনায় অভিযুক্ত ধর্ষক হোসেন আলীকে (৮৫) গ্রেফতার করে পুলিশ। তিনি উপজেলার বেরীবাইদ ইউনিয়নের বাসিন্দা।

রোববার দুপুরে ধর্ষণের ঘটনার পর সেদিন রাতেই থানায় মামলা করেন ওই শিশুর মা। পরে সোমবার দুপুরে ওই শিশুকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়। 

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, রোববার দুপুরে স্থানীয় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির ওই শিক্ষার্থী ছুটির পর সহপাঠীদের সঙ্গে বাড়ি ফিরছিল। পথিমধ্যে কোমল পানীয়ের লোভ দেখিয়ে হোসেন আলী তাকে রাস্তার ধারেই তার নির্জন বাড়িতে নিয়ে যান। এরপর তার মুখে গামছা বেঁধে ধর্ষণ করেন। এ সময় ধস্তাধস্তিতে মুখের গামছার বাঁধন খুলে গেলে শিশুটির চিৎকার ও কান্নার শব্দে পাশের বাড়ির লোকজন গিয়ে তাকে উদ্ধার করে। ঘটনাস্থল থেকে হোসেনকেও আটক করে রাখা হয়। পরে খবর পেয়ে পুলিশ রাতেই তাকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। 

এ প্রসঙ্গে মধুপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তারিক কামাল ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, মামলার পর অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়। সোমবার তাকে টাঙ্গাইল আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। একইদিন ওই শিশুটির ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।