• মঙ্গলবার, অক্টোবর ২৭, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৫:১২ সন্ধ্যা

রাতের আঁধারে গুজব, আজান ও করোনাবিরোধী মিছিল!

  • প্রকাশিত ১২:৪১ দুপুর মার্চ ২৭, ২০২০
নরসিংদী

'করোনা থেকে সাবধান, আল্লাহু আকবার' স্লোগানে রাতের আঁধারে মুখরিত হয়ে ওঠে গ্রামগুলো

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ও লোকমুখে ছড়িয়ে পড়া গুজবে একটি ভীতিময় রাত পার করেছেন নরসিংদীর বেলাব উপজেলার মানুষ। বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) রাত সাড়ে ১০টার দিকে হঠাৎ করেই উপজেলার প্রায় সব এলাকার মসজিদের মাইক থেকে ভেসে আসতে থকে আজানের ধ্বনি। এরই মধ্যে শুরু হয় "করোনাবিরোধী" মিছিল। কিছুক্ষণ পরে কালোজিরা, আদা, লবঙ্গ খাওয়ার হিড়িক পড়ে বাড়িতে বাড়িতে।

 একাধিক স্থানীয় সূত্র জানায়, রাতে হঠাৎ করেই মসজিদগুলোর মাইকে আজান দেওয়া শুরু হয়। একইসঙ্গে ঘোষণা করা হয়, "বাড়ি বাড়ি আজান দিতে হবে ও দুই রাকাত নফল নামাজ পড়তে হবে। এতে আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়ে মানুষ। আযান ও নামাজের প্রস্তুতি শেষ হতে না হতেই বিভিন্ন এলাকায় শুরু হয় "করোনাবিরোধী" মিছিল।

"করোনা থেকে সাবধান, আল্লাহু আকবার" স্লোগানে রাতের আঁধারে মুখরিত হয়ে ওঠে গ্রামগুলো। জনসমাগমে সরকারি নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করেই মিছিল নিয়ে শত শত মানুষ মানুষ নেমে পড়ে রাস্তায়। 


আরও পড়ুন - করোনাভাইরাস: ২৪ ঘণ্টায় দুই চিকিৎসকসহ নতুন করে আক্রান্ত ৪


স্থানীয়রা জানান, এরই মধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে, "করোনাভাইরাস থেকে বাঁচতে রাত ১২ টার আগে কালোজিরা, আদা, লবঙ্গ খেতে হবে।" 

এসব গুজব ও অস্থিতিশীলতায় উপজেলার অনেক মানুষই কাটিয়েছেন নির্ঘুম রাত। 

প্রত্যক্ষদর্শী গ্রামবাসী জানান, রাত সাড়ে ১০টায় হঠাৎ করে বেলাব, আমলাব, বাজনাব, নারায়ণপুর, চরউজিলাব, পাটুলী ইউনিয়নের শতাধিক মসজিদ থেকে ক্রমাগত আজান দেওয়া শুরু হয়। কিছু কিছু মসজিদ থেকে বলা হয় বাড়ি বাড়িতে আজান, নফল নামাজ, কোরআন তেলওয়াত ও তওবা করার জন্য। 


আরও পড়ুন- করোনাভাইরাস: মসজিদের মাইকে ঔষধ ছেটানোর গুজব!


এর কিছুক্ষণ পর বারৈচা, দেওয়ানেরচর, খামারচর এলাকায় করোনাবিরোধী মিছিল বের করে এলাকার কিছু মানুষ। তাদের স্লোগান ছিল- "করোনা ভাইরাস নিপাত যাক, আল্লাহু আকবার"। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে মিছিলটি ছত্রভঙ্গ করে দেয়।  

আজান প্রসঙ্গে উপজেলার ধুকুন্দি জামে মসজিদের পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা জুনাইদ হোসেন ফারুকী বলেন, "দেশে যখন মহামারি, আজাব, গজব আসে তখন আযান দিলে আল্লাহ এগুলো থেকে বান্দাদের রক্ষা করেন। কিন্তু মিছিল কীভাবে কারা, কেন করেছে তা আমি জানি না।"

 উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা মোহাম্মদ নজরুল ইসলাম বলেন, "আজান দেওয়ার বিষয়টি ধর্মীয়, তবে মিছিলের নামে কোনো গণজমায়েত নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। কালোজিরা, আদা, লবঙ্গ খেলে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হবে না, চিকিৎসা বিজ্ঞান অনুযায়ী এ কথার কোনো ভিত্তি নেই।"

বেলাব থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ফখরুউদ্দীন ভূইয়া বলেন, "রায়পুরা থেকে কিছু লোক মিছিল নিয়ে বেলাব থানার বারৈচা এলাকায় যায়। পরে আমরা খবর পেয়ে মিছিলটি ছত্রভঙ্গ করে দিয়েছি। আসলে গতকাল রাতে যা হয়েছে সব গুজব এবং হুজুগেই হয়েছে।"

56
50
blogger sharing button blogger
buffer sharing button buffer
diaspora sharing button diaspora
digg sharing button digg
douban sharing button douban
email sharing button email
evernote sharing button evernote
flipboard sharing button flipboard
pocket sharing button getpocket
github sharing button github
gmail sharing button gmail
googlebookmarks sharing button googlebookmarks
hackernews sharing button hackernews
instapaper sharing button instapaper
line sharing button line
linkedin sharing button linkedin
livejournal sharing button livejournal
mailru sharing button mailru
medium sharing button medium
meneame sharing button meneame
messenger sharing button messenger
odnoklassniki sharing button odnoklassniki
pinterest sharing button pinterest
print sharing button print
qzone sharing button qzone
reddit sharing button reddit
refind sharing button refind
renren sharing button renren
skype sharing button skype
snapchat sharing button snapchat
surfingbird sharing button surfingbird
telegram sharing button telegram
tumblr sharing button tumblr
twitter sharing button twitter
vk sharing button vk
wechat sharing button wechat
weibo sharing button weibo
whatsapp sharing button whatsapp
wordpress sharing button wordpress
xing sharing button xing
yahoomail sharing button yahoomail