Saturday, May 18, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

সরকারি চাল সহযোগীদের বাড়িতে লুকিয়ে রেখে বেচতেন যুবলীগ নেতা

ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি মঞ্জু তাদের মাধ্যমে খাদ্যবান্ধবসহ বিভিন্ন কর্মসূচির চাল সংগ্রহ করে তাদের বাড়িতে মজুদ রাখতেন। পরে সুযোগমতো সেসব চাল বেচে দিতেন

আপডেট : ১৫ এপ্রিল ২০২০, ০৪:২৯ পিএম

খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ৬২ বস্তা চাল উদ্ধার ও হেফাজতে রাখায় দুই ব্যক্তিকে আটক করেছে বগুড়ার গাবতলী থানা পুলিশ। মঙ্গলবার (১৪ এপ্রিল) রাতে উপজেলার দক্ষিণপাড়া ইউনিয়নের উজগ্রাম মগরাপাড়া থেকে চালগুলো উদ্ধার ও জড়িত থাকার অভিযোগে দুই ব্যক্তিকে আটক করা হয়। আটক দু’জন হলেন উজগ্রাম মগরাপাড়া গ্রামের রুবেল মিয়া (৩০) ও একই গ্রামের নজরুল ইসলাম (৩৮)।

স্থানীয়রা জানান, ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মঞ্জুরুল আলম মঞ্জু দীর্ঘ ১০-১২ বছর ধরে সরকারি বিভিন্ন প্রকল্পের চাল কেনাবেচা করেন। তার স্ত্রী লিমা বেগম ওই ইউনিয়নের ৩ নম্বর সংরক্ষিত আসনের সদস্য। অভিযোগ রয়েছে, যুবলীগ নেতা মঞ্জু স্ত্রীর ইউপি সদস্য লিমার সহযোগিতায় এসব চাল কিনে গ্রামে তার সহযোগীদের বাড়িতে লুকিয়ে রাখতে ও পরে সুযোগমতো বিক্রি করতেন।

গাবতলী থানার ওসি (অপারেশন) লাল মিয়া জানান, গোপন খবর পেয়ে গাবতলী থানা পুলিশ মঙ্গলবার রাতে ওই গ্রামে অভিযান চালান। টের পেয়ে মঞ্জু ও তার স্ত্রী পালিয়ে গেলে গুটলু নামে একজনের বাড়ি থেকে ৩৩ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়। এ সময় গুটলুকে পাওয়া না গেলেও সেখান থেকে রুবেল মিয়াকে আটক করা হয়। রাতেই পুলিশ একই গ্রামের নজরুল ইসলামের বাড়ি থেকে ২৯ বস্তা চাল উদ্ধার করে। পরে মসজিদের মোয়াজ্জেম নজরুল ইসলামকেও আটক করা হয়। তাৎক্ষণিক জিজ্ঞাসাবাদে এরা স্বীকার করেছে, ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি মঞ্জু তাদের মাধ্যমে খাদ্যবান্ধবসহ বিভিন্ন কর্মসূচির চাল সংগ্রহ করে তাদের বাড়িতে মজুদ রাখতেন। পরে সুযোগমতো সেসব চাল বেচে দিতেন।

গাবতলী থানার ওসি সাবের রেজা আহম্মেদ বলেন, “বিভিন্ন সাইজের ৬২ বস্তা চাল উদ্ধার ও দু’জনকে আটক করা হয়েছে। সরকারি চাল কেনাবেচায় গ্রেফতার ও জড়িতদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।”

About

Popular Links