Wednesday, May 29, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

করোনাভাইরাসে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিবের মৃত্যু

রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি

আপডেট : ০৯ মে ২০২০, ০৯:৫২ পিএম

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন খাদ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব গৌতম আইচ সরকার। শনিবার (৯ মে) রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয় বলে নিশ্চিত করেন হাসপাতালের পরিচালক জামিল আহমেদ। ঢাকা ট্রিবিউনকে তিনি বলেন, “তার নমুনা পরীক্ষা করে করোনাভাইরাস শনাক্ত করা হয়।”

এর আগে বৃহস্পতিবার কিডনি সংক্রান্ত জটিলতা নিয়ে চিকিৎসার জন্য রাজধানীর বিভিন্ন হাসপাতালে ঘুরেও গৌতম চিকিৎসা পাননি বলে অভিযোগ তোলেন তার পরিবারের সদস্যরা। ল্যাবএইড কিংবা ঢাকা মেডিকেল কলেজের মতো হাসপাতালে গিয়েই তিনি চিকিৎসা পাননি বলে অভিযোগ তাদের।

মৃতের পরিবারের সদস্যদের উদ্ধৃত করে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব মোসাম্মত নাজমানারা খানম ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “কিডনি সংক্রান্ত নানা জটিলতায় ভুগছিলেন তিনি। গত এক বছর ধরে ল্যাবএইড হাসপাতালে তার ডায়ালাইসিস চলছিল। তারপরও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে ভর্তি করেনি।”

এ বিষয়ে ল্যাবএইড হাসপাতালের জনসংযোগ কর্মকর্তা মেহের-ই-খুদা দীপ জানান, করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে হাসপাতালে আসার কারণে গৌতমকে ভর্তি করা হয়নি।

তিনি বলেন, “তিনি আমাদের হাসপাতালের নিয়মিত রোগী ছিলেন। আমাদের এখানে তার ডায়ালাইসিস চলছিল। কিন্তু এখানে যখন আসেন তখন তার জ্বর ও অন্যান্য করোনাভাইরাসের উপসর্গ ছিল।”

এক পর্যায়ে গৌতমকে কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করাতে সক্ষম হয় পরিবারের লোকজন। এ প্রসঙ্গে সচিব নাজমানারা খানম বলেন, “তার (গৌতম) পরিবারের সাথে শুক্রবার থেকেই আমাদের সার্বক্ষণিক যোগাযোগ ছিল। আমরা কুর্মিটোলা হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে তার ডায়ালাইসিস করানোর কথা বলি। ডায়ালাইসিস করানোর মতো সুবিধা থাকায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষও তাকে উপযুক্ত চিকিৎসা দেয়া হবে বলে নিশ্চিত করে।

তিনি আরও জানান, শুক্রবার রাতে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়। চিকিৎসকরা এ সময় গৌতম আইচ সরকার আইসিইউতে স্থানান্তর করতে চাইলেও করোনাভাইরাস সংক্রমণের আশংকায় রাজী হননি তার পরিবারের সদস্যরা।

About

Popular Links