Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

আইজিপি: বড়লোক হতে চাইলে ব্যবসা করুন, পুলিশের চাকরি নয়

'পুলিশকে জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে যেতে হবে'

আপডেট : ২২ জুন ২০২০, ০৩:০৪ পিএম

পুলিশের কোনো সদস্য অবৈধভাবে উপার্জন করতে পারবে না বলে দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদ।

রবিবার (২১ জুন) পুলিশ সদর দপ্তর থেকে চট্টগ্রাম, খুলনা, রাজশাহী, বরিশাল ও রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ; পুলিশের চট্টগ্রাম, সিলেট, রাজশাহী, রংপুর, খুলনা ও বরিশাল রেঞ্জ, স্পেশাল ব্রাঞ্চ, অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি), র‍্যাপিড অ্যাকশান ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব), পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই), রেলওয়ে, টুরিস্ট, হাইওয়ে ও ইন্ডাস্ট্রিয়াল পুলিশ, পুলিশ স্টাফ কলেজ, বাংলাদেশ পুলিশ অ্যাকাডেমি, সারদার প্রধান এবং ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে পুলিশ সদর দফতর থেকে ভিডিও কনফারেন্সে এ কথা বলেন তিনি।

বেনজীর আহমেদ বলেন, “কোনো পুলিশ সদস্য অবৈধভাবে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন না। দুর্নীতির সঙ্গে যুক্ত হয়ে কেউ যদি বড়লোক হতে চায়, তাহলে সে চাকরি ছেড়ে দিয়ে ব্যবসা করুক, আমরা তাকে সাধুবাদ জানা‌বো। কিন্তু পুলিশে থেকে কোনোভাবেই দুর্নীতির সঙ্গে যুক্ত থাকা যা‌বে না।”

মাদক প্রসঙ্গে আইজিপি বলেন, “প্রত্যেক পুলিশ সদস্যকে অবশ্যই মাদকমুক্ত হতে হবে। কোনো পুলিশ সদস্য মাদক গ্রহণ করবেন না, মাদকের ব্যবসা করবেন না, মাদক ব্যবসায়ীদের সঙ্গে সম্পর্ক রাখবেন না। বাংলাদেশকে একটি মাদকমুক্ত দেশ হিসেবে গড়ে তুলতে আমাদের সবাইকে যৌথভাবে কাজ করতে হবে।”

এ সময় করোনাভাইরাসের সংক্রমণে মৃত পুলিশ সদস্যদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বেনজীর আহমেদ বলেন, “করোনাভাইরাসের এই মহামারির সময় জনগণকে আমাদের কাছে আসতে হয়নি। আমরা জনগণের কাছে গিয়েছি। তাদের পাশে থেকেছি। তাদের সংক্রমণ থেকে সুরক্ষিত রাখতে গিয়ে নিজেরা আক্রান্ত হয়েছি। জীবন বিলিয়ে দিয়েছি। এসবের অনেক কিছুই আমাদের দায়িত্বের মধ্যে পড়ে না। তবুও মানবিক দিক বিবেচনা করে পুলিশ সদস্যরা হাসিমুখে এসব কাজ করে চলেছেন।"

তিনি আরও বলেন, "আমাদের জনগণের সেবায় নিয়োজিত হতে হবে। পুলিশকে জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে যেতে হবে, যেন সাধারণ মানুষের কষ্ট করে পুলিশের কাছে না আসা লাগে।"

আইজিপি আরও বলেন, “দেশের প্রতিটি ইউনিয়নকে একেকটি বিটে ভাগ করে প্রতিটি বিটের দায়িত্বে একজন পুলিশ কর্মকর্তা‌কে নি‌য়োজিত করা হবে। ওই কর্মকর্তা নিয়মিত ওই ইউনিয়নের মানুষের সুযোগ-সুবিধা, সমস্যা ইত্যাদির খোঁজখবর করবেন। প্রতিনিয়ত তাদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখবেন। তাৎক্ষণিকভাবে তাদের সমস্যার সমাধান করবেন এবং কাঙ্ক্ষিত সেবা দেবেন।”

এ সময় বিট পুলিশিংয়ের সাফল্যের কথা তুলে ধরেন তিনি। বেনজীর বলেন, “ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেটে বিট পুলিশিং সফল হয়েছে। আমরা সারা দেশে বিট পুলিশিং চালু করতে চাই, মানুষের কাছে যেতে চাই, মানুষের হৃদয় জয় করতে চাই।”

 

About

Popular Links