Monday, May 20, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

গোপালগঞ্জে স্কুল ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা

সোমবার (৬ জুলাই) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় দিকে গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলায় ফোন করে ডেকে নিয়ে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করা হয় ওই ছাত্রকে

আপডেট : ০৮ জুলাই ২০২০, ১০:২৫ এএম

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলায় মোবাইলে ডেকে নিয়ে রইচ শেখ নামে এক শিক্ষার্থীকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করার অভিযোগ উঠেছে শহীদুল ইসলাম শহীদ নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। আহত রইচ কাশিয়ানী জি সি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র। 

সোমবার (৬ জুলাই) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় দিকে কাশিয়ানী উপজেলার চর পিংগলিয়ায়  এ ঘটনাটি ঘটে। 

এ ঘটনায় আহত রইচ শেখের চাচা মো. আবুল কালাম কালু   কাশিয়ানী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। 

মো. আবুল কালাম কালু বলেন, “সোমবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে শহীদুল ইসলাম শহীদ আমার ভাতিজা রইচ শেখকে ফোন করে চর পিংগলিয়া গ্রামের জুলফিকার মিনার চায়ের দোকানের কাছে যেতে বলে। রইচ   তার বন্ধু আরমান মুন্সীকে সাথে নিয়ে সেখানে যায়। তাকে ফাঁকা জায়গায় নিয়ে গিয়ে শহিদ ও তার লোকজন চাইনিজ কুড়াল, রামদা দিয়ে হাত, পা, মাথা ও শরীর বিভিন্ন স্থানে তাকে এলোপাথাড়ি  কুপিয়ে ও পিটিয়ে মারাত্মকভাবে জখম করে। এসময় হামলাকারীরা তার পকেট থেকে দুইটি মোবাইল ফোন ও নগদ ২০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়। রইচ শেখের চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে এলে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। পরে এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে  কাশিয়ানী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। তাকে হত্যার উদ্দেশে তাকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে বলে তিনি অভিযোগ করেন। 

 হাসপাতালের চিকিৎসাধীন রইচ শেখ বলেন, ঢাকা থেকে আব্বুর পাঠানো টাকা বিকাশ থেকে তুলে বাড়ি যাওয়ার সময় শহীদুল ইসলাম শহীদ আমাকে ফোন করে দেখা করতে বলে। আমি আমার বন্ধু আরমান মুন্সীকে সাথে নিয়ে দেখা করতে করি। তারপর শহীদ  ও তার লোকজন আমার উপর অতর্কিতে  হামলা করে আমাকে প্রাণে মেরে ফেলার চেষ্টা চালায়। পরে আমার চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে আমাকে উদ্ধার করে। 

কাশিয়ানী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আলমগীর কবির বলেন, “হামলাকারীরা রইচ শেখ নামে এক স্কুল ছাত্রকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করেছে। আহত রইচ শেখের চাচা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। এ ঘটনায় অভিযুক্তদের গ্রেফতারে অভিযান শুরু হয়েছে

About

Popular Links