Tuesday, May 28, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

আলোকচিত্রী শহিদুল আলমকে প্রথম শ্রেণির ডিভিশন দেওয়ার নির্দেশ

‘তাৎক্ষণিকভাবেই তাকে এই ডিভিশন সুবিধা দিতে বলা হয়েছে।’

আপডেট : ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৫:৩৩ পিএম

কারাবিধি অনুযায়ী আলোকচিত্রী ড. শহিদুল আলমকে প্রথম শ্রেণির ডিভিশন দেওয়ার আদেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের মামলার আওতায় গ্রেফতার হন চলতি বছরের এই আলোকচিত্রী।

বুধবার (৫ সেপ্টেম্বর) শহিদুল আলমের স্ত্রী ড. রেহনুমা আহমেদের দায়ের করা রিট আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারপতি বোরহানউদ্দীন ও বিচারপতি মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের বেঞ্চ এ আদেশ দেন। আদালতে রিটের পক্ষে ব্যারিস্টার সারা হোসেন শুনানি করেন। তার সঙ্গে ছিলেন ব্যারিস্টার জ্যোতির্ময় বড়ুয়া।

গত ২৭ আগস্ট ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম সাইফুজ্জামান হিরো আলোকচিত্রী শহিদুল আলমকে কারাবিধি অনুযায়ী ডিভিশন দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন। তবে সে আদেশটি প্রতিপালন না হওয়ায় এই রিট দায়ের করা হয় বলে জানান ড. আলমের আইনজীবীরা।

এ প্রসঙ্গে ব্যারিস্টার সারা হোসেন বলেন, “আমাদের কারাবিধি অনুযায়ী বিচারাধীন কারাবন্দিদের দুই ধরনের শ্রেণিতে রাখা হয়। প্রথম শ্রেণি ও দ্বিতীয় শ্রেণি। সেখানে বলা আছে, কারও সামাজিক বা শিক্ষাগত যোগ্যতার কারণে তাকে প্রথম শ্রেণির কারাবন্দি হিসেবে গণ্য করা যায়। ড. শহিদুল আলমের পক্ষে গত ২৭ আগস্ট আমরা মুখ্য মহানগর হাকিমের আদালতে তার জন্য প্রথম শ্রেণির ডিভিশন চেয়ে একটি আবেদন করেছিলাম। আদালত তখন ডিভিশনের আদেশ দিলেও গত কয়েকদিনেও তা প্রতিপালন হয়নি। তাই আমরা তার ডিভিশন চেয়ে হাইকোর্টে একটি আবেদন জানাই। সে আবেদনের শুনানি নিয়ে হাইকোর্ট শহিদুল আলমকে ডিভিশন দিতে নির্দেশ দেন। তাৎক্ষণিকভাবেই তাকে এই ডিভিশন সুবিধা দিতে বলা হয়েছে।”

উল্লেখ্য, গত ২৮ আগস্ট হাইকোর্টে শহিদুল আলমের জামিন বিষয়ে আবেদন করেন তার আইনজীবীরা। কিন্তু মঙ্গলবার (৪ সেপ্টেম্বর) হাইকোর্ট সে জামিন আবেদন শুনতে বিব্রত প্রকাশ করেন। ফলে নিয়ম অনুসারে আবেদনটির শুনানির জন্য নতুন বেঞ্চ গঠন করে দেবেন প্রধান বিচারপতি।


About

Popular Links