Friday, May 24, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

রাস্তা পাকা করার দাবিতে সড়কে ধানের চারা রোপণ!

শুক্রবার (২৪ জুলাই)  টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার পাথার গ্রামের কিছু তরুণ ও কৃষক মিলে ধানের চারা রোপণ করে এ প্রতিবাদ করেন

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২০, ১২:৪১ পিএম

টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলায় কাঁচা সড়ক পাকা করার দাবিতে সড়কে আমন ধানের চারা রোপণ করে প্রতিবাদ করেছে এলাকাবাসী। শুক্রবার (২৪ জুলাই) উপজেলার পাথার গ্রামের কিছু তরুণ ও কৃষক মিলে এ চারা রোপণ করে এ প্রতিবাদ করেন। পরে ধানের চারা রোপণের ছবি তুলে তারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করেন। এতে ব্যাপক আলোচনার সৃষ্টি হয়। 

জানা গেছে, সখীপুরের গজারিয়া ইউনিয়নের মাদারিচালা এলাকা থেকে ছোট পাথার পর্যন্ত ৩ কিলোমিটার ও গজারিয়া থেকে জয়বাংলা বাজার পর্যন্ত আরও ৩ কিলোমিটারসহ মোট ৬ কি.মি. এ সড়কটি দীর্ঘদিন ধরে বেহাল অবস্থায় রয়েছে। 

পাথার গ্রামের বাসিন্দা ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের আইনের শিক্ষার্থী শাকিল আহমেদ বলেন, “বর্তমানে বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় বাড়িতেই রয়েছি।দরকারি কাজে বাজারে যেতে হলে তিন কিলোমিটার কাদা মাড়িয়ে পায়ে হেঁটে যেতে হয়। আমাদের গ্রামে প্রায় ৩শ’ মোটরসাইকেল রয়েছে। বর্ষা মৌসুমে ঘরবন্দি করে রাখা হয়েছে। আমরা কয়েকজন তরুণ বন্ধু মিলে সড়ক পাকা করার দাবিতে সড়কের কিছু অংশে ধানের চারা রোপণ করেছি। কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে এ প্রতিবাদ করা হয়েছে।”

গজারিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ৫নং ওয়ার্ডের সদস্য গোলাম মওলা বলেন, “আমাদের ইউনিয়ন বন্যামুক্ত ও পাহাড়িয়া সমতল ভূমি। মাদারিচালা এলাকার আয়াত আলী মেম্বারের বাড়ি থেকে ছোট পাথার পর্যন্ত ৩ কিলোমিটার ও গজারিয়া থেকে জয়বাংলা বাজার পর্যন্ত আরও ৩ কিলোমিটার  পৃথক দুটি সড়ক কমপক্ষে ১শ’ বছর আগের পুরনো। গত ১০ বছর ধরে ওই সড়কে ইউনিয়ন পরিষদের মাধ্যমে কয়েকবার মাটির কাজ করে উন্নয়ন করা হয়েছে। কাঁচা রাস্তা থাকায় আর লালমাটি দিয়ে ভরাট করায় সামান্য বৃষ্টিতেই এতো কাঁদা হয় যে, পায়ে হেঁটেও চলাচল করা যায় না। বিশেষ করে বর্ষা মৌসুম পুরোটাই কাদায় পরিপূর্ণ থাকে।” 

গজারিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুল মান্নান মিঞা বলেন, “গ্রামের কিছু তরুণ সড়কে ধানের চারা রোপন করেছে বলে ফেসবুকে ছবি দেখেছি। ওই দুটি সড়ক অনেক দিনের পুরনো। বিষয়টি স্থানীয় সংসদ সদস্যকে জানানো হয়েছে। তিনি বলেছেন, আগামী বছর দুটি সড়কই পাকা করে দেবেন।”

এ বিষয়ে উপজেলা এলজিইডির প্রকৌশলী এসএম হাসান ইবনে মিজান বলেন, ওই দুটি সড়ক উন্নয়নকল্পে স্থানীয় সংসদ সদস্যের তালিকায় রয়েছে। আশা করি আগামী দুই বছরে সখীপুরে একটিও কাঁচা রাস্তাও থাকবে না। সব পাকা হয়ে যাবে। পর্যায়ক্রমে ওই দুটি সড়কও পাকা হবে বলে তিনি জানান।

স্থানীয় সংসদ সদস্য জোয়াহেরুল ইসলাম জোয়াহের করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি থাকায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।


About

Popular Links