Sunday, May 19, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মারা গেছেন আল্লামা শফী

শুক্রবার সন্ধ্যায় (১৮ সেপ্টেম্বর) রাজধানী ঢাকার গেন্ডারিয়া এলাকার আজগর আলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়


আপডেট : ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭:০৯ পিএম

হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের প্রধান আল্লামা আহমদ শফী মারা গেছেন। শুক্রবার সন্ধ্যায় (১৮ সেপ্টেম্বর) রাজধানী ঢাকার গেন্ডারিয়া এলাকার আজগর আলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়

হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের চট্টগ্রাম মহানগরীর প্রচার সম্পাদক আ ন ম আহমদ উল্লাহ ঢাকা ট্রিবিউনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

তিনি জানান, শারীরিক অবস্থা অবনতি হওয়ায় প্রথমে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) এবং পরে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে রাজধানী ঢাকার আজগর আলী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে লাইফ সাপোর্টে থাকা অবস্থায় তিনি ইন্তেকাল করেন।


আরও পড়ুন - হাটহাজারি মাদ্রাসা থেকে পদত্যাগ করলেন আল্লামা শফী


এর আগে, শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় শুক্রবার (১৮ সেপ্টেম্বর) দুপুর দেড়টার দিকে আহমদ শফীকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) নেওয়া হয়। 

হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এসএম হুমায়ুন কবির বলেন, “তার অবস্থা সঙ্কটাপন্ন। তার চিকিৎসার জন্য আমরা ইতোমধ্যে একটি মেডিকেল বোর্ড গঠন করেছি। উন্নত চিকিৎসার জন্য পরিবারের সদস্যরা এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে তাকে ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।”

চমেক হাসপাতালের সহকারী পরিচালক ডা. আফতাবুল ইসলাম ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “তার অক্সিজেন স্যাচুরেশন কমে গেছে। তিনি বর্তমানে অচেতন অবস্থায় আছেন।”

উল্লেখ্য, দীর্ঘদিন ধরে ডায়াবেটিস, উচ্চরক্তচাপসহ বার্ধক্যজনিত বিভিন্ন সমস্যায় ভুগছেন শফী।


আরও পড়ুন - আইসিইউতে আল্লামা শফী, আনা হচ্ছে ঢাকায়


আহমদ শফী ১৯১৬ সালে চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া থানার পাখিয়ারটিলা গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। হাটহাজারীর আল-জামিয়াতুল আহলিয়া দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম ও ভারতের দারুল উলুম দেওবন্দ মাদরাসায় শিক্ষালাভের পর আল-জামিয়াতুল আহলিয়া দারুল উলুম মুঈনুল ইসলামে শিক্ষকতার মাধ্যমে তিনি কর্মজীবন শুরু করেন। ২০ বছরেরও বেশি সময় শিক্ষকতার পর ১৯৮৯ সালে আহমদ শফী মাদ্রাসাটির অধ্যক্ষ ও একইসাথে পরিচালকের দায়িত্ব পান। ২০১০ সালে তিনি হেফাজতে ইসলাম প্রতিষ্ঠা করেন ও সংগঠনটির আমিরের দায়িত্ব গ্রহণ করেন।


আরও পড়ুন- হেফাজত মহাসচিবের ওপর বিক্ষোভরত ছাত্রদের হামলা


গত ১৬ সেপ্টেম্বর আহমদ শফীর পদত্যাগ,  তার ছেলে আনাস মাদানীকে মাদ্রাসা থেকে বহিষ্কারসহ ৫ দফা দাবি নিয়ে দারুল উলুম হাটহাজারীর ছাত্ররা আন্দোলন শুরু করে। দুপুর থেকে এ আন্দোলন শুরু হয়, রাতে আনাস মাদানীকে বহিষ্কার করা হয় এবং পরদিন ১৭ সেপ্টেম্বর আহমদ শফী স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করেন।


আরও পড়ুন- হাটহাজারি মাদ্রাসা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধের নির্দেশ


আরও পড়ুন - আইনমন্ত্রী: আল্লামা শফীর উক্তি দেশের উন্নয়নের বিপরীতে যায়

About

Popular Links