Tuesday, May 21, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

নারীদের হিজাব, পুরুষদের টাকনুর ওপর প্যান্ট পরার সরকারি নির্দেশনা!

বুধবার (২৮ অক্টোবর) এ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি দেন জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের পরিচালক ডা. মুহাম্মদ আব্দুর রহিম

আপডেট : ২৯ অক্টোবর ২০২০, ০৪:৩৪ পিএম

মুসলিম ধর্মাবলম্বী নারী ও পুরুষদের জন্য ড্রেস কোড নির্ধারণ করে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের পরিচালক ডা. মুহাম্মদ আব্দুর রহিম। 

বুধবার (২৮ অক্টোবর) এ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করেন তিনি। শুধু তাই নয় অফিস চলাকালে মোবাইল ফোন সাইলেন্ট অথবা বন্ধেরও নির্দেশ দেন তিনি। 

বিজ্ঞপ্তিটিতে বলা হয়েছে, “অত্র ইনস্টিটিউটের সকল কর্মকর্তা কর্মচারীদের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে, অফিস চলাকালীন সময়ে মোবাইল সাইলেন্ট/বন্ধ রাখা এবং মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের জন্য পুরুষ টাকনুর ওপরে এবং মহিলা হিজাবসহ টাকনুর নিচে কাপড় পরিধান করা আবশ্যক এবং পর্দা মানিয়া চলার জন্য নির্দেশ প্রদান করা হলো।”

এ প্রসঙ্গে তিনি  বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, “সরকারের পক্ষ থেকে আমাকে এ ধরনের কোনও নির্দেশ দেওয়া হয়নি।” 

বিজ্ঞপ্তিটি ইস্যু করার পেছনে কারণ হিসেবে তিনি বলেন, “আমি একজন সরকারি কর্মকর্তা। আমি আমার অফিসের জন্য নির্দেশ দিয়েছি। আমাদের দেশ মুসলিম কান্ট্রি, আমাদের দেশে, আমার অফিসে যদি এভাবে সজ্জিত হয় আমার কাছে ভালো লাগবে।”

এদিকে, বিজ্ঞপ্তিটি প্রকাশের পর থেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সমালোচনার ঝড় শুরু হয়েছে।ইনস্টিটিউটটির সাবেক এক পরিচালক এ প্রসঙ্গে বলেছেন, বর্তমান যুগে এসে মোবাইল বা সেল ফোন বন্ধ রাখার পেছনে কোনও যুক্তি নেই। মোবাইল বর্তমানে  অক্সিজেন নেওয়ার মতোই গুরুত্বপূর্ণ। এছাড়া মোবাইলের ব্যবহার আমাদের কাজকে অনেকটাই সহজ করে দিয়েছে।

 ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. গীতিআরা নাসরিন তার এক ফেসবুক পোস্টে বিজ্ঞপ্তিটি শেয়ার করেছেন। এরপর এটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক সমালোচনার সৃষ্টি করে। 

উৎসব মোসাদ্দেক নামে এক ব্যক্তি পোস্টটিতে বলেন, এ ধরনের নির্দেশ আমাদের সংবিধানের সঙ্গে কোনোভাবেই যায় না।

সুপ্রভা তাসনিম নামে অপর এক ফেসবুক ব্যবহারকারী বলেন, বিজ্ঞপ্তিটি মেনে নেওয়া খুবই কষ্টকর।

 


 

About

Popular Links