Tuesday, May 28, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

পিটিয়ে হত্যার পর লাশে আগুন: ছায়া তদন্তে নেমেছে র‌্যাব

‘আমরা ঘটনার গভীরে তদন্ত করছি। কারা, কেন গুজব ছড়িয়ে এমন একটি ঘটনা সৃষ্টি করলো, এসব কিছুই তদন্ত করে দেখা হচ্ছে’

আপডেট : ৩০ অক্টোবর ২০২০, ০৭:৩৪ পিএম

লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারীতে আবু ইউনুস মো. শহিদুন্নবী জুয়েলকে (৫০) পিটিয়ে হত্যার লাশ পুড়িয়ে দেওয়ার ঘটনায় ছায়া তদন্তে নেমেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। 

শুক্রবার (৩০ অক্টোবর) সন্ধ্যায় রংপুরের র‌্যাব-১৩ এর উপপরিচালক মেজর আব্দুল্লাহ আল মুইন হাসান ঢাকা ট্রিবিউনকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।  

তিনি বলেন, “লালমনিরহাট জেলা প্রশাসন ও পুলিশের অনুরোধে আমাদের একটি চৌকস দল র‍্যাব-১৩ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাফিজুর রহমান হাফিজের নেতৃত্বে কাজ করছে। জেলা প্রশাসন ও পুলিশ যতদিন মনে করবে ততদিন তারা বুড়িমারীতে কাজ করবে।” 

জানতে চাইলে রংপুর র‍্যাব-১৩ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাফিজুর রহমান হাফিজ বলেন, “ঘটনার পর বৃহস্পতিবার রাত থেকেই আমরা বুড়িমারীতে অবস্থান করছি। আমরা পৃথক পৃথক দলে টহল জোরদার করেছি। প্রযুক্তিসহ বিভিন্নভাবে আমরা ছায়া তদন্ত করছি। আমরা যা পাচ্ছি, তা পুলিশ ও জেলা প্রশাসনকে অবহিত করছি। আমরা ঘটনার গভীরে তদন্ত করছি। কারা, কেন গুজব ছড়িয়ে এমন একটি ঘটনা সৃষ্টি করলো, এসব কিছুই তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।” 

এদিকে, পিটিয়ে হত্যার পর পুড়িয়ে ছাই করার ঘটনাটিকে একটি পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড উল্লেখ করে জুয়েলের শ্যালক মিলন হক তালুকদার বলেন, “জুয়েল ভাইকে হত্যার বিচার চাই। এ ঘটনায় আমরা মামলা করবো।” 

তিনি আরও বলেন, “আমার ভগ্নিপতি যদি কোনো অপরাধ করে থাকে তাহলে তাকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে দেওয়া যেত। কিন্তু তা না করে কেন তাকে নিষ্ঠুরভাবে পিটিয়ে হত্যা করে লাশ পুড়িয়ে দেওয়া হলো? এই ঘটনাটি সভ্য সমাজের কোনো মানুষই সমর্থন করে না। আমরা ন্যায় বিচার চাই।”

About

Popular Links