Tuesday, May 21, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মৃত নারীকে বাঁচাতে খাওয়ানো হলো পানিপড়া

মঙ্গলবার ভোর রাতে তিনি মারা যান

আপডেট : ০৪ নভেম্বর ২০২০, ০৮:১৫ পিএম

লালমনিরহাটের পাটগ্রামে সাপে কাটা নারীকে চিকিৎসক মৃত ঘোষণার পরও তাকে দাফন না করে ওঝা এনে ঝাড়ফুঁকের আয়োজন করার খবর পাওয়া গেছে।  

পরে টানা দুই ঘণ্টা ঝাঁড়ফুক শেষে কোনো ফলাফল ছাড়াই মঙ্গলবার (৩ নভেম্বর) দিবাগত রাতে ওই নারীর লাশ দাফন করা হয়।

সাপের কামড়ে মৃত তছিরন নেছা পাটগ্রাম পৌরসভার ৮ নম্বর ওয়ার্ডের মির্জারকোর্ট ডাহাহাটির ডাঙ্গা গ্রামের তছলিম হোসেনের স্ত্রী।

এলাকাবাসী জানায়, সোমবার সন্ধ্যায় তছিরন তার মেয়ে শেফালী বেগমের বাড়ি থেকে হেঁটে নিজ বাড়িতে ফিরছিলেন। এ সময় পথে তার পায়ে বিষাক্ত সাপ দংশন করে।

খবর পেয়ে পরিবারের লোকজন তাকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় পাটগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যায়। সেখান জরুরি বিভাগের চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য ওই নারীকে  রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার ভোর রাতে তিনি মারা যান।

এরপর স্থানীয় এক ওঝা নিহতের পরিবারকে জানান, সাপে কাটা ব্যক্তি চেতনাহীনভাবে কয়েকদিন বেঁচে থাকে। এতে ওই পরিবারের লোকজনের মাঝে বিশ্বাস সৃষ্টি হয়। পরে ওঝা  মৃত ওই নারীকে পানি খাওয়ানোর চেষ্টা করেন ও দুই ঘণ্টা ঝাড়ফুঁক করেন।

কিন্তু অবস্থার কোনো উন্নতি না হলে  স্থানীয় লোকজনের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। বিষয়টি বুঝতে পেরে ওঝা জানান তার চেষ্টা ব্যর্থ হয়েছে। অবশেষে মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে তছিরন নেছার দাফনকাজ সম্পন্ন হয়।

 

About

Popular Links