Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

আগামীকাল প্রধানমন্ত্রী উদ্বোধন করছেন দেশের প্রথম ‘ওয়াই সেতু’

ওয়াই সেতুটি কুমিল্লা জেলার হোমনা এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার বাঞ্ছারামপুর দুই উপজেলার উত্তর-দক্ষিণ সীমান্তের মাঝে তিতাস নদীর ওপর নির্মিত হয়েছে। সেতুটি চালু হলে এই অঞ্চলবর্তী মানুষের যোগাযোগে নতুন দিগন্তের সূচনা হবে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা।

আপডেট : ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৬:১১ পিএম

রবিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) কুমিল্লা এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার উত্তর-দক্ষিণ সীমান্তবর্তী তিতাস নদীর ওপর নির্মিত দেশের প্রথম ওয়াই আকৃতির ‘শেখ হাসিনা তিতাস সেতু’ উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী। উদ্বোধনের পর থেকে সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে সেতুটি। স্থানীয় সরকার বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, বেলা সাড়ে ১১টায় ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে গণভবন থেকে সরাসরি সেতুটির উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। 

এ বিষয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া বাঞ্ছারামপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো: শরিফুল ইসলাম জানান, এ জন্য স্থানীয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহন করা হয়েছে। 

ওয়াই সেতুটি কুমিল্লা জেলার হোমনা এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার বাঞ্ছারামপুর দুই উপজেলার উত্তর-দক্ষিণ সীমান্তের মাঝে তিতাস নদীর ওপর নির্মিত হয়েছে। সেতুটি চালু হলে এই অঞ্চলবর্তী মানুষের যোগাযোগে নতুন দিগন্তের সূচনা হবে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুর উপজেলা স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) ও নাভানা বিল্ডার্সের তত্ত্বাবধানে ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১১ সালে এই সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু হয়। প্রায় ৭৭১ মিটার দৈর্ঘ্য এবং ৮.১০ মিটার প্রস্থ সেতুটি প্রধানমন্ত্রী নির্মানে ব্যয় হয়েছে ৯৯ কোটি ৮৬ লক্ষ টাকা। সেতুটি চালু হলে বাঞ্ছারামপুর, কুমিল্লা জেলার হোমনা, মেরাদনগর এলাকার অন্তত ৫ লক্ষ মানুষ উপকৃত হবে।


About

Popular Links