Friday, May 24, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

সাফারি পার্কে প্রথমবারের মতো ফুটলো উটপাখির ৪ ছানা

এর আগে অনেকবার বিদেশি প্রযুক্তির দামি ইনকিউবেটর ব্যবহার করেও বাচ্চা ফুটাতে ব্যর্থ হয়েছিল পার্ক কর্তৃপক্ষ

আপডেট : ১৩ জানুয়ারি ২০২১, ০৪:১৩ পিএম

গাজীপুরের শ্রীপুরে অবস্থিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে ইনকিউবেটর ব্যবহার করে প্রথমবারের মতো  উটপাখির চারটি বাচ্চা ফুটেছে। 

গত ৭ থেকে ১২ জানুয়ারি পর্যন্ত ইনকিউবেটরে এই চারটি বাচ্চা পাওয়া যায়। এর আগে প্রাকৃতিক উপায়ে বাচ্চার উৎপাদন সঠিকভাবে হচ্ছিলো না। অন্যদিকে, বিদেশি প্রযুক্তির দামি ইনকিউবেটর ব্যবহার করেও বাচ্চা ফুটাতে ব্যর্থ হয়েছিল কর্তৃপক্ষ। 

তবে এবার দেশীয় প্রযুক্তি এবং ইনকিউবেটর ব্যবহার উটপাখির বাচ্চা ফোটানোর ঘটনা সাফারি পার্কের জন্য অভাবনীয় সাফল্য বলে দাবি করেছেন সাফারি পার্কের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও সহকারি বন সংরক্ষক তবিবুর রহমান।

তিনি জানান, সাফারি পার্কে বিদেশি প্রযুক্তির দামি ইনকিউবেটর ব্যর্থ হয়েছে। অতীতে অনেকবার উন্নত প্রযুক্তির ইনকিউবেটরে চেষ্টা করলেও সফল হইনি। অন্যদিকে প্রতিবার অনেক ডিম দেওয়ার পরও প্রাকৃতিকভাবে বাচ্চা পাচ্ছিলাম না।

এই কর্মকর্তা জানান, বাচ্চা ফুটানোর জন্য সাতটি ডিম গত ১৯ নভেম্বর ইনকিউবেটরে দেওয়া হয়। প্রথম ডিম থেকে বাচ্চা বের হয় ৭ জানুয়ারি। ১২ জানুয়ারি সবশেষ ডিম ফোটার পর উটপাখির বাচ্চার সংখ্যা দাঁড়ায় চারটিতে। সে হিসেবে বলা যায় সফলতার হারও অনেক বেশি। বাচ্চাগুলো বর্তমানে সুস্থ রয়েছে এবং অল্প পরিমাণে খাবার খেতে শুরু করেছে।

তবিবুর রহমান বলেন, “এ পাখিটি ২০১৩ সালে আফ্রিকা থেকে কিনে আনা হয়। সাফারি পার্কে ইনকিউবেটর পদ্ধতিতে ফোটা বাচ্চা ৪টি ফিমেল ও একটি মেলসহ বর্তমানে পাঁচটি উটপাখি রয়েছে। পাখিগুলো একবারে ১৫টি পর্যন্ত ডিম দিয়ে থাকে।  ডিম থেকে বাচ্চা ফুটতে একমাসের অধিক সময় লেগে যায়।”

About

Popular Links