Sunday, May 19, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মা-মেয়েকে গাছে বেঁধে নির্যাতন, ২ নারীসহ গ্রেফতার ৩

স্বামীর অবর্তমানে সংসারের অভাব অনটন থেকে মুক্তি পেতে মমতাজ 'জিনের বাদশা' নামের স্থানীয় এক প্রতারকের খপ্পরে পড়েন

আপডেট : ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০৮:৩২ পিএম

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলায় বিধবা এক নারী ও তার মেয়েকে গাছে বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় দুই নারীসহ তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।  শনিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) দিবাগত রাতে সদর উপজেলার পিরুজালী এলাকা থেকে দুই নারীকে গ্রেফতার করা হয়। 

গ্রেফতারকৃতরা হলেন--কালিয়াকৈর উপজেলার সিরাজপুর গ্রামের মনির হোসেনের স্ত্রী শিল্পী বেগম (৩৫) ও তার মেয়ে মুক্তা আক্তার (১৯)। এর আগে একই ঘটনায় স্থানীয় মোক্তার হোসেনের ছেলে সবুজ উদ্দিনকে (৪২) গ্রেফতার করা হয়।

নির্যাতনের শিকার দু’জন হলো-কালিয়াকৈর উপজেলার সিরাজপুর গ্রামের মৃত আব্দুর রশিদের বিধবা স্ত্রী মমতাজ বেগম (৩০) ও তার মেয়ে দশম শ্রেণির ছাত্রী মাহবুবা আক্তার ঝুমা। 

কালিয়াকৈর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) রাজীব চক্রবর্তী জানান, ঋণের টাকা পরিশোধ না করায় পাওনাদারের লোকজন গত বৃহষ্পতিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) মমতাজ বেগম ও মাহবুবা আক্তার ঝুমাকে বাড়ি থেকে টেনেহিঁচড়ে বের করে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন করে। এ ঘটনায় ওইদিন রাতেই মমতাজ বেগম বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকায় পুলিশ পরদিন (শুক্রবার) স্থানীয় সবুজ উদ্দিন নামের একজনকে গ্রেফতার করে

স্বামীর অবর্তমানে সংসারের অভাব অনটন থেকে মুক্তি পেতে মমতাজ “জিনের বাদশা” নামের স্থানীয় এক প্রতারকের খপ্পরে পড়েন। সংসারের স্বচ্ছলতা ফিরিয়ে দেওয়ার প্রতিশ্রুতিতে ওই ব্যক্তির হাতে মোটা অংকের টাকা তুলে দেন মমতাজ বেগম। তিনি স্থানীয় কয়েক ব্যাক্তির কাছ থেকে ওই টাকা সুদে গ্রহণ করেন।

 

About

Popular Links