Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

প্রেমিকাকে অপহরণ করে বন্ধুদের নিয়ে ধর্ষণ

এক মাস আগে বাবুলের সাথে মোবাইলে পরিচয় ও প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে ওই তরুণীর
আপডেট : ০১ মার্চ ২০২১, ১০:৫৮ পিএম

ঠাকুরগাঁওয়ে প্রেমের ফাঁদে ফেলে প্রেমিকাকে অপহরণ করে বন্ধুদের নিয়ে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। 

গত শনিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি)  ঠাকুরগাঁও জেলায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় গণধর্ষণের শিকার কিশোরীর মা বাদী হয়ে ঠাকুরগাঁও সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করেন। মামলার পরিপ্রেক্ষিতে পুলিশ কথিত প্রেমিকসহ অভিযুক্ত ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে। 

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তানভিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, "তদন্তে দোষী হিসেবে যাদের নাম আসবে সবাইকে আইনের আওতায় আনা হবে।" 

এ ঘটনায় গ্রেফতারকৃতরা হলেন- জেলার রাণীশংকৈল উপজেলার উত্তর মহেশপুর গ্রামের আব্দুল জলিলের ছেলে বাবুল (১৯), একই এলাকার খলিলুর রহমানের ছেলে সোহেল রানা (২০), নুনতোর বাবুপাড়া গ্রামের শামসুদ্দীনের ছেলে রমজান আলী (১৯), ঝাড়বাড়ি মোহাম্মদপুর গ্রামের মোসলেম উদ্দীনের ছেলে পইদুল ইসলাম (২২)।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, এক মাস আগে ওই তরুণীর সাথে বাবু ওরফে বাবুলের মোবাইলে পরিচয় ও প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। পরবর্তীতে গত শনিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) বিকাল তিনটার সময় ওই তরুণী তার ভাতিজিকে নিয়ে খালার বাড়িতে যাওয়ার জন্য বের হয়। পথিমধ্যে প্রেমিক বাবুল কাশিয়াডাঙ্গা ব্রিজে দেখা করার জন্য প্রেমিকাকে আসতে বলে। 

সেখান থেকে বাবুল, তার বন্ধু সোহেলসহ অপরিচিত ৪/৫ জন ওই তরুণী ও তার ভাতিজিকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। পরবর্তীতে স্থানীয় ভগত গাজীর মুরগির ফার্মে ওই তরুণীর ভাতিজিকে আটকে রেখে তরুণীকে পাশের আমবাগানে নিয়ে গণধর্ষণ করা হয়। 

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ইন্সপেক্টর জিয়ারুল ইসলাম বলেন, "ইতোমধ্যেই ভিক্টিমের ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে চারজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতার করতে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।"  

About

Popular Links