Sunday, May 19, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

শেখ হাসিনার নামে পদ্মাসেতুর নামকরণের সিদ্ধান্ত : সেতুমন্ত্রী

মন্ত্রী বলেন,  “‘শেখ হাসিনা-পদ্মা সেতু’ নামকরণের বিষয়ে মন্ত্রণালয়ে লেখা হয়েছে ও সেজন্য বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষ সিদ্ধান্ত নিয়েছি এবং এই ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীকে সার সংক্ষেপ পাঠানো হয়েছে। জনমতের চাপ প্রতিনিয়ত অনভুব করছি।”

আপডেট : ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৩:১১ পিএম

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামেই নির্মাণাধীন পদ্মাসেতুর নামকরণের সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।  

আজ শনিবার দুপুর ১টার দিকে মুন্সীগঞ্জের মাওয়া প্রান্তের সেতু প্রকল্প এলাকায় এ কথা বলেন মন্ত্রী।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘পদ্মাসেতুর নামকরণের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী ও বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা বারবার বলেছেন, পদ্মা নদীর নামে সেতুর নাম হবে। পার্লামেন্টের সদস্যরা, বাইরের জনমত অনুযায়ী একই বক্তব্য। প্রধানমন্ত্রী সৎ সাহস দেখিয়ে প্রমাণ করেছেন-তিনি বঙ্গবন্ধুর বীর কন্যা। সে কারণে ৩১ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে নিজস্ব ফান্ডে সেতু নির্মিত হচ্ছে। বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষ জনমতের প্রতিফলন ঘটাতে চায়। সেতুর নামকরণের বিষয়ে বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠন থেকে বহু চিঠিপত্র আসে। সবার অভিমত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামে নামকরণ হোক।’

“‘শেখ হাসিনা-পদ্মা সেতু’ নামকরণের বিষয়ে মন্ত্রণালয়ে লেখা হয়েছে ও সেজন্য বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষ সিদ্ধান্ত নিয়েছি এবং এই ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীকে সার সংক্ষেপ পাঠানো হয়েছে। জনমতের চাপ প্রতিনিয়ত অনভুব করছি।”

সেতুমন্ত্রী আরও বলেন, “বিশ্বব্যাংক পদ্মা সেতু থেকে সরে যাওয়ার পর নিজস্ব অর্থায়নে সেতু নির্মাণের সাহস দেখায় বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তার এ সাহসকে সম্মান (জানাই)। তার একক সাহসের সোনালী ফসল পদ্মা সেতু। তার একক অবদানের জন্য এই সেতু নির্মিত হচ্ছে। স্বপ্নেও ভাবতে পারিনি সাহায্য ছাড়াই সেতু নির্মাণ হচ্ছে। ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার পদ্মা সেতুর নামে নামকরণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি ‘শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু’। পদ্মা সেতুর সার্বিক অগ্রগতি ৫৯ শতাংশ ও মূল সেতুর অগ্রগতি ৭০ শতাংশ (শেষ হয়েছে)। ১৩ অক্টোবর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রকল্প এলাকায় এসে ৬০ শতাংশ কাজের উদ্বোধন করবেন।”

এ সময় উপস্থিত ছিলেন-প্রকল্প পরিচালক শফিকুল ইসলাম, পদ্মা সেতু প্রকল্পের প্রকৌশলী দেওয়ান আবদুল কাদের প্রমুখ।

About

Popular Links