Tuesday, May 21, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

হাসপাতালে সেন্ট্রাল অক্সিজেন প্লান্ট থাকলেও নেই সরবরাহ

প্ল্যান্টের কাজ এক সপ্তাহ আগে শেষ হলেও, লিকুইড অক্সিজেন সরবরাহ না করায় তা চালু করা সম্ভব হয়নি

আপডেট : ১৯ জুলাই ২০২১, ০৭:৩৪ পিএম

করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় পাবনা জেনারেল হাসপাতালে অক্সিজেন সরবরাহ নিশ্চিত করতে লিকুইড অক্সিজেন প্ল্যান্টের কাজ এক সপ্তাহ আগে শেষ হলেও, লিকুইড অক্সিজেন সরবরাহ না করায় তা চালু করা সম্ভব হয়নি। সোমবার (১৯ জুলাই) হাসপাতালের প্রশাসনিক কর্মকর্তা রুহুল হোসেন এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, “সেন্ট্রাল অক্সিজেন সরবরাহের জন্য লিকুইড অক্সিজেন কাঠামো নির্মাণের কাজ গত সপ্তাহে শেষ হয়েছে। লিকুইড অক্সিজেন সরবরাহ না থাকায় এটি চালু করা যাচ্ছে না। হাসপাতালে জরুরি ভিত্তিতে মিড-ফোল্ডের মাধ্যমে হাই-ফ্লো অক্সিজেন সরবরাহ দেওয়া হচ্ছে। তবে, তা পর্যাপ্ত নয়।” ঈদের ছুটিতে অক্সিজেন সরবরাহ সংকট হতে পারে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করেন তিনি।

হাসপাতাল সূ্ত্রে জানা গেছে, অতিরিক্ত রোগীর চাপ সামলাতে এ হাসপাতালে ৫০ শয্যা থেকে বাড়িয়ে ১৫০ শয্যার করোনাভাইরাস ইউনিট চালু করা হয়েছে। করোনা ওয়ার্ডে চিকিৎসার জন্য স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে অতিরিক্ত ডাক্তার ও নার্স নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। প্রতিদিনি ১০০টি ছোট সিলিন্ডার ও ২৪ থেকে ৩৬টি বড় সিলিন্ডার দিয়ে রোগীদেরকে অক্সিজেন সরবরাহ দেওয়া হচ্ছে। ১০০ শয্যার করোনাভাইরাস ইউনিটে ১১৯ জন রোগী ভর্তি রয়েছেন।

এ  বিষয়ে পাবনার সিভিল সার্জন ডা. মনিসর চৌধুরী বলেন, “ঈদের ছুটিতে কোনো অক্সিজেনের ঘাটতি না থাকে, সেজন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে। হাসপাতালে সেন্ট্রাল অক্সিজেন সরবরাহ চালু করা গেলে অক্সিজেনের কোনো ঘাটতি থাকবে না।”

প্রসঙ্গত, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে আরও দুইজন রোগীর। এ নিয়ে জুলাই মাসের ১৯ দিনে পাবনা জেনারেল হাসপাতালের করোনাভাইরাস ইউনিটে ৩২ জন রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

About

Popular Links