Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

নারায়ণগঞ্জে অগ্নিকাণ্ড: ৪৮ জনের পরিচয় শনাক্ত

আগামী সপ্তাহে ডিএনএ পরীক্ষার ফলাফল অনুযায়ী পরিবারের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে

আপডেট : ০১ আগস্ট ২০২১, ১০:১২ পিএম

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে সেজান জুস কারখানায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় পুড়ে মারা যাওয়া ৪৮ জনের পরিচয় শনাক্ত করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) ফরেনসিক শাখা। আগামী সপ্তাহে ডিএনএ পরীক্ষার ফলাফল অনুযায়ী পরিবারের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে।

রবিবার (১ আগস্ট) সিআইডির ফরেনসিক শাখার এক কর্মকর্তা এ তথ্য জানান। দৈনিক প্রথম আলোর এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

সিআইডির ফরেনসিক শাখার ওই কর্মকর্তার উদ্ধৃতি দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়, আগুনে পোড়া ৪৮ টি লাশের পরিচয় শনাক্তের জন্য ৬৬ জন স্বজনের ডিএনএ নমুনা সংগ্রহ করা হয়। ডিএনএ পরীক্ষার ফলাফলে অধিকাংশ লাশের পরিচয় শনাক্ত করা গেছে। অন্য বাকি কাজও শেষ পর্যায়ে আছে।


আরও পড়ুন- নারায়ণগঞ্জ অগ্নিকান্ড: হত্যা মামলায় সজীব গ্রুপের চেয়ারম্যান ও দুই ছেলের জামিন


এ বিষয়ে সিআইডির অতিরিক্ত ডিআইজি ইমাম হোসেন বলেন, আমরা লাশের পরিচয় শনাক্ত করতে পেরেছি। কোনটা কার লাশ আশা করছি পরিচয়সহ প্রতিবেদন আগামী সপ্তাহের মধ্যে জমা দিতে পারবো।

এর আগে গত ৮ জুলাই বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৫টায় উপজেলার ভুলতা কর্ণগোপ এলাকার  হাশেম ফুড অ্যান্ড বেভারেজের সেজান জুস কারখানার ৭ তলা ভবনের নিচতলায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

শ্রমিক ও ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা গেছে, কর্ণগোপ এলাকায় অবস্থিত সজীব গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান সেজান জুস উৎপাদনে ৭ তলা ভবন বিশিষ্ট কারখানায় প্রায় ৭ হাজার শ্রমিক কর্মচারী কর্মরত। বৃহস্পতিবার বিকেলে হঠাৎ ভবনের নিচতলায় একটি ইউনিটে আগুন দেখতে পায় শ্রমিকরা। মুহূর্তেই আগুন পুরো ভবনে ছড়িয়ে পড়ে। এ সময়  শ্রমিকরা ছোটাছুটি শুরু করে। অনেকেই প্রাণে বাঁচতে ছাদ থেকে লাফিয়ে পড়ে। এ সময় গুরুতর আহতাবস্থায় শ্রমিকদের হাসপাতালে নেওয়া হলে স্বপ্না রানী ও মিনা আক্তার নামের দুই নারী শ্রমিককে মৃত ঘোষণা করেন ইউএস ইউএস বাংলা মেডিকেল কলেজের দায়িত্বরত চিকিৎসক।

About

Popular Links