Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

নারায়ণগঞ্জে আবারও কারখানায় আগুন

আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে ফায়ার সার্ভিসের ১৪টি ইউনিট

আপডেট : ০৪ আগস্ট ২০২১, ০২:৩৭ পিএম

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলায় একটি কারখানায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার (৪ আগস্ট) দুপুর ১২টার দিকে উপজেলার তারাব পৌরসভার রূপসী মৈকুলী এলাকায় এ ঘটনা  ঘটে। ডেমরা ফায়ার স্টেশনের ডিউটি অফিসার আজহারুল ইসলাম ঢাকা ট্রিবিউনকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

আগুন নিয়ন্ত্রণে কাঞ্চন, ডেমরা ও আড়াইহাজার, সোনারগাঁও ফায়ার স্টেশনের ১৪টি ইউনিট কাজ করছে।

ডিউটি অফিসার আজহারুল ইসলাম বলেন, “আমরা বেলা ১২টা ১৫ মিনিটে অগ্নিকাণ্ডের খবর  পাই। সঙ্গে সঙ্গেই আমাদের ইউনিট বেরিয়ে পড়ে। কাঞ্চন,আড়াইহাজার ফায়ার সার্ভিসসহ ১৪টি ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে।”

এদিকে, কারখানা ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বেলা ১২টার দিকে কারখানা থেকে কালো ধোঁয়া বের হতে থাকে। একপর্যায়ে আগুন দোতলা ভবনটির সব জায়গায় ছড়িয়ে পড়ে।

ছবি : ঢাকা ট্রিবিউন

ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়া হলে বেলা সাড়ে ১২টার দিকে তারা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ শুরু করে।

প্রত্যক্ষদর্শী ওরিয়েন্ট লিমিটেডের সহকারী ম্যানেজার (প্রশাসন) কমল কুমার গুপ্ত বলেন, “আমাদের  পাশেই ইউনাইটেড লেদার ইন্ডাস্ট্রিটি। কালো ধোঁয়া যখন বের হচ্ছিল তখন গার্ড হুইসেল দিলে আমরা নিচে নেমে দেখি আগুন, ধোঁয়ায় চারদিক আচ্ছন্ন হয়ে আছে। তখন  আনুমানিক ১২টা ৫ বা ১০ বাজে। আমি সঙ্গে সঙ্গেই ডেমরা, কাঞ্চন ফায়ার স্টেশনে ফোন করে খবর দেই।”

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কারখানার এক কর্মচারী জানান,  আগুনের সূত্রপাত ভবনের দ্বিতীয় তলায় কেমিক্যালের গোডাউন থেকে হতে পারে।  

‍“কারণ আমরা যখন ধোঁয়া দেখে ভবনের সামনে যাই দোতলা কেমিক্যাল রাখার গোডাউন থেকে আগুন বের হতে দেখছিলাম। এখন বাকিটা ফায়ার সার্ভিস বলতে পারবে।”

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স নারায়ণগঞ্জ জেলার উপসহকারী পরিচালক আবদুল্লাহ আল আরেফিন জানান, কারখানার আগুন প্রায় নিয়ন্ত্রণে। ১৪ টি ইউনিট কাজ করছে।  অগ্নিকাণ্ডের কারণ ও হতাহতের বিষয়ে এখনও কিছু বলা যাচ্ছে না।

গত ৮ জুলাই জেলার রূপগঞ্জ উপজেলার কর্ণগোপ এলাকায় অবস্থিত সজিব গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান হাসেম ফুড অ্যান্ড বেভারেজের সেজান জুস কারখানায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। ভয়াবহ সেই অগ্নিকাণ্ডে ৫২ জন মারা যান।

About

Popular Links