Friday, May 24, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

কুমিল্লায় ফার্মেসিতে সরকারি ও ভেজাল ওষুধ বিক্রি, আটক ২

এসময় তাদের কাছ থেকে  দেড় লাখ টাকা জরিমানাও করা হয়

আপডেট : ০৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৩:২২ পিএম

কুমিল্লায় সরকারি ওষুধ ব্যক্তিমালিকানাধীন ফার্মেসিতে এবং অননুমোদিতভাবে আমদানিকৃত বিদেশি, দেশীয় ভেজাল ওষুধ বিক্রির অপরাধে দুই ব্যবসায়ীকে আটক ও দেড় লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (৭ সেপ্টেম্বর) রাতে কুমিল্লা আদর্শ সদর উপজেলার আলেখারচর কুমিল্লা মেডিসিন কমপ্লেক্সের দুটি ওষুধ ফার্মেসিতে র‌্যাব এ অভিযান পরিচালনা করে। এসময় তাদের কাছ থেকে বিপুল পরিমাণের সরকারি ওষুধ, অননুমোদিতভাবে আমদানিকৃত বিদেশি ও ভেজাল ওষুধ জব্দ করা হয়।

মঙ্গলবার দিবাগত রাত দেড়টায় এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানান কুমিল্লায় র‌্যাব-১১ কোম্পানি কমান্ডার মেজর মোহাম্মদ সাকিব হোসেন।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, কুমিল্লার আদর্শ সদর উপজেলার আলেখারচর এলাকায় কুমিল্লা মেডিসিন কমপ্লেক্সের “আব্দুল্লাহ ফার্মেসী” তে বিশেষ অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযানে ব্যক্তি মালিকানাধীন ফার্মেসীতে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের বিনামূল্যে বিতরণের জন্য বরাদ্দকৃত বিপুল পরিমাণ সরকারি ওষুধ কালোবাজারে বিক্রয়ের সময় জব্দ করা হয়। এসময় জেলার দাউদকান্দি উপজেলার বিটিচারপাড়া গ্রামের মো. নুরুদ্দিন মিয়ার ছেলে মো. সাইফুল ইসলামকে (২৩) আটক করা হয়। একই সময় কুমিল্লা মেডিসিন কমপ্লেক্সের “প্রিয়াংকা" নামে আরও একটি ফার্মেসিতে অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযানে ভারত, ইউএসএ, শ্রীলঙ্কা ও বুলগেরিয়ার তৈরি বিপুল পরিমাণ ওষুধ এবং বাংলাদেশে তৈরি ভেজাল ওষুধ জব্দ করা হয়। এছাড়া নগদ এক লাখ ৪১ হাজার ৪০০ হাজার টাকাসহ চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ থানার ভাট্টেরহদ গ্রামের মো. আলমগীর হোসেনের ছেলে মো. আরমান হোসেনকে (১৯) গ্রেপ্তার করা হয়।

কোম্পানি কমান্ডার মেজর মোহাম্মদ সাকিব হোসেন জানান, অপরাধীরা কালোবাজারে সরকারি ওষুধ বিক্রি এবং অননুমোদিতভাবে আনয়ন করে ফার্মেসিতে বিক্রয় করে আসছিল।

About

Popular Links