Friday, May 24, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

পাউরুটিতে পটাশিয়াম ব্রোমেট, বাড়ছে ক্যানসারের ঝুঁকি

সম্প্রতি বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ ঢাকা শহরের বিভিন্ন এলাকায় বিক্রি হওয়া ১৯টি পাউরুটির নমুনা পরীক্ষা করে। সেসব পাউরুটি পরীক্ষা করে ১৬টির ক্ষেত্রে বা ৮৪ শতাংশে পটাশিয়াম ব্রোমেটের এই উপস্থিতি পাওয়া গেছে

আপডেট : ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৬:৪১ পিএম

সম্প্রতি বেকারি খাদ্য তৈরিতে ক্ষতিকর পটাশিয়াম ব্রোমেট ও পটাশিয়াম আয়োডেট ব্যবহার বন্ধের নির্দেশনা জারি করেছে বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ। 

জরুরি সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তিতে বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ জানায়, রুটি, পাউরুটি ও বেকারি খাদ্যে পটাশিয়াম ব্রোমেট (কেবিআরও৩) ও পটাশিয়াম আয়োডেট (কেআইও৩) ব্যবহার সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, এসব দ্রব্য ব্যবহারের ফলে মানুষের ক্যান্সার, থাইরয়েড গ্রন্থির রোগ, ও জিনগত রোগ সৃষ্টি হয়। এমনিক এগুলো মিউটেশনও ঘটাতে পারে। 

সম্প্রতি বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ ঢাকা শহরের বিভিন্ন এলাকায় বিক্রি হওয়া নামী ব্র্যান্ড ও সুপরিচিত নয়, এমন ১৯টি পাউরুটির নমুনা পরীক্ষা করে। সেসব পাউরুটি পরীক্ষা করে ১৬টির ক্ষেত্রে বা ৮৪ শতাংশে পটাশিয়াম ব্রোমেটের এই উপস্থিতি পাওয়া গেছে।

পাউরুটিগুলোতে পাওয়া পটাশিয়াম ব্রোমেটের মাত্রা ছিল ৩ দশমিক ৩১ পিপিএম (পার্টস পার মিলিয়ন) থেকে ১২ দশমিক ৯১ পিপিএম। অর্থাৎ ব্যবহৃত আটার ১০ লাখ ভাগের ৩ দশমিক ৩১ থেকে ১২ দশমিক ৯১ ভাগ পটাশিয়াম ব্রোমেট। 

এই পরীক্ষার সঙ্গে যুক্ত ছিলেন নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের সদস্য (জনস্বাস্থ্য ও পুষ্টি) মঞ্জুর মোর্শেদ আহমেদ। তিনি সংবাদমাধ্যম প্রথম আলোকে বলেন, “পরীক্ষায় প্রাথমিকভাবে ঢাকায় যে ফলাফল পেয়েছি, এতেই বিশ্বাস, বাংলাদেশে উপাদানগুলো বিস্তৃতি পরিসরে ব্যবহৃত হয়”

বাংলাদেশ অটো-বিস্কুট অ্যান্ড ব্রেড ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যাসোসিয়েশনের তথ্যমতে দেশে প্রতিদিন প্রায় ১ হাজার টন পাউরুটি উৎপাদিত হয়। এসব পাউরুটির মেয়াদ থাকে তিন দিন পর্যন্ত। 

নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানায়, পাউরুটি ফুলাতে পটাশিয়াম ব্রোমেট ও পটাশিয়াম আয়োডেট ব্যবহৃত হয়। এগুলো ছাড়াও আরও কিছু ‘ইমপ্রুভার’ ব্যবহৃত হয়, যা দিয়ে পাউরুটির স্বাদ ও আকার ঠিক করা হয়। 

২০১৬ সালে পাউরুটি তৈরির জন্য বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন (বিএসটিআই) একটি মান নির্ধারণ করে দেয়। তখন পাউরুটি ইমপ্রুভার হিসেবে অ্যামোনিয়াম পারসালফেট, পটাশিয়াম ব্রোমেট, পটাশিয়াম আয়োডেট, ক্যালসিয়াম কার্বনেট, অ্যাসিড ক্যালসিয়াম ফসফেট ও ক্যালসিয়াম ফসফেট ব্যবহারের অনুমতি দেওয়া হয়। এক কেজি পাউরুটিতে পাঁচ মিলিগ্রাম পটাশিয়াম ব্রোমেট ব্যবহারের অনুমতি ছিল। 

তবে ২০১৮ সালে বিএসটিআই পাউরুটিতে পটাশিয়াম ব্রোমেট ও আয়োডেটের ব্যবহার নিষিদ্ধ করে।

বিশ্বের অনেক উন্নত দেশ পাউরুটিতে এই রাসায়নিকটির ব্যবহার নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে। বাংলাদেশেও এটি নিষিদ্ধ করা হয় ২০১৮ সালে।

তবে সম্প্রতি বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) এবং বেসরকারি নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষক দল দেশে উৎপাদিত পাউরুটির অনেকগুলোতে পটাশিয়াম ব্রোমেট পায়। এরপর দেশের নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ এ বিষয়ে কাজ শুরু করে এবং এর প্রমাণ পায়।

About

Popular Links