Wednesday, May 22, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

তিন মাসের সন্তানকে ডোবায় ফেলে হত্যা করলেন মা

পারিবারিক কলহের জেরে তিন মাস ১০ দিন বয়সের কন্যা সন্তানকে ডোবার পানিতে ফেলে হত্যা করেছেন মা

আপডেট : ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২২, ০৭:৪৬ পিএম

কুমিল্লার চান্দিনায় পারিবারিক কলহের জেরে তিন মাস ১০ দিন বয়সের কন্যা সন্তানকে ডোবার পানিতে ফেলে হত্যা করেছেন মা। ঘটনার পর মা ছামিয়া আক্তার বকুলকে (২০) আটক করে চান্দিনা থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করে এলাকাবাসী।

সোমবার (২১ ফেব্রুয়ারি) উপজেলার বরকইট ইউনিয়নের শালচর গ্রামে ওই ঘটনা ঘটে। নিহত শিশুটির নাম উম্মে সাইফা।

এ ব্যাপারে নিহত শিশুর পিতা মো. ওমর ফারুক চান্দিনা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, দেড় বছর আগে উপজেলার শালচর গ্রামের ছামিয়া আক্তার বকুলের (২০) সঙ্গে পাশের খৈছাড়া গ্রামের মো. ওমর ফারুকের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে তাদের পারিবারিক কলহ চলে আসছিল। তিন মাস আগে ছামিয়া আক্তার বকুল কন্যা সন্তানের মা হয়। পারিবারিক কলহের কারণে কিছুদিন ধরেই তিনি সন্তানসহ বাবার বাড়িতে অবস্থান করছিলেন।

২০ ফেব্রুয়ারি স্থানীয়ভাবে সালিশ হয়। সেখানে মেয়েটিকে স্বামীর বাড়িতে পাঠানোর সিদ্ধান্ত হয়। সোমবার সকালে বকুল তার কন্যা সন্তানকে শালচর এলাকার একটি ডোবার পানিতে ফেলে দেয়। পরে স্থানীয়রা শিশুটিকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করে।

এ বিষয়ে চান্দিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ আরিফুর রহমান জানান, লাশ উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহত উম্মে ছাইফার মা ছামিয়া আক্তার বকুলকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি পানিতে ফেলে শিশুটিকে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন।

About

Popular Links