Tuesday, May 28, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

শ্বশুরবাড়ি জামাইয়ের লাশ, মিলল রক্তমাখা লাঠি-ওড়না

ওসি আজিজ বলেন, নিহতের স্ত্রী কেয়া পুলিশকে জানায়, তার স্বামী গভীর রাতে আহত ও অসুস্থ অবস্থায় বাড়ি ফিরে শুয়ে পড়েন। সোমবার সকাল ৬টার দিকে তিনি সেখানে মারা যান।

আপডেট : ০৫ নভেম্বর ২০১৮, ০৬:০৫ পিএম

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলা থেকে আরিফ কাজী (৪০) নামে এক ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে রক্তমাখা লাঠি ও ওড়না উদ্ধার করেছে পুলিশ। 

আজ সোমবার সকালে উপজেলার ঘোনাপাড়া বাজার এলাকা থেকে ওই ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত আরিফ  গোপালগঞ্জ শহরের গেটপাড়ার মৃত মজিবর কাজীর ছেলে। তিনি গরুর খামারের ব্যবসা করতেন।

এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আরিফের স্ত্রী ফারজানা ইসলাম কেয়া (৩০) ও শ্বশুর কাশিয়ানীর এমএ খালেক কলেজের সহকারী অধ্যাপক এবাদুল ইসলামকে (৫৬) আটক করেছে। 

কাশিয়ানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আজিজুর রহমান জানান, রোববার রাতের কোনো এক সময় আরিফকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে হত্যা করা হয়। তার হাত-পা ও পিঠসহ বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। হাত ও পা থেঁতলে গেছে।  আঘাতজনিত কারণেই আরিফের মৃত্যু হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। ঘটনাস্থল থেকে রক্ত মাখা লাঠি ও ওড়না উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। 

ওসি আজিজ আরও বলেন, নিহতের স্ত্রী কেয়া পুলিশকে জানায়, তার স্বামী গভীর রাতে আহত ও অসুস্থ অবস্থায় বাড়ি ফিরে শুয়ে পড়েন। সোমবার সকাল ৬টার দিকে তিনি সেখানে মারা যান।

About

Popular Links