Thursday, May 23, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

প্রধানমন্ত্রী: ‘জয় বাংলা’ না বলার অর্থ স্বাধীনতাকে ক্ষুণ্ণ করা

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০২তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস ২০২২ উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন

আপডেট : ২১ মার্চ ২০২২, ০১:২৫ পিএম

যারা এখনও মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম অনুপ্রেরণা “জয় বাংলা”-কে জাতীয় স্লোগান হিসেবে স্বীকৃতি দিতে চান না তাদের নিন্দা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শুক্রবার (১৮ মার্চ) জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০২তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস ২০২২ উপলক্ষে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ার বঙ্গবন্ধু সমাধিসৌধ কমপ্লেক্সে আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক আলোচনা সভায় গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

“যারা এখনও ‘জয় বাংলা’ স্লোগান দেয় না তারা আসলে দেশের স্বাধীনতা, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা এবং বাংলাদেশের স্বাধীনতার আদর্শে বিশ্বাস করে না,” প্রধানমন্ত্রী বলেন।

আলোচনা সভায় শেখ হাসিনা বলেন, “জয় বাংলা স্লোগান একসময় দেশে নিষিদ্ধ ছিল। এই স্লোগান দেওয়ার কারণে এবং বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ বাজানোর জন্য আওয়ামী লীগের অনেক নেতাকর্মী প্রাণ হারিয়েছিলেন। মুক্তিযোদ্ধারা এই স্লোগান উচ্চারণ করেই স্বাধীনতা অর্জন করেছেন এবং শাহাদাত বরণ করেছেন। কিন্তু স্বাধীনতা বিরোধী অপশক্তি ও খুনি চক্র এই স্লোগান নিষিদ্ধ করেছিল।”

এ সময় অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন- আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য শাহজাহান খান এমপি, জাহাঙ্গীর কবির নানক ও আবদুর রহমান, যুগ্ম সম্পাদক মাহবুবুল আলম এমপি ও আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক সিরাজুল মোস্তফা, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলী, সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম এমপি, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোপালগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. আলী খান এবং প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. আব্দুস সোবহান গোলাপ এমপি।

About

Popular Links