Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

কুষ্টিয়ায় আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষ, নিহত ৪

এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এ সংঘর্ষ হয়

আপডেট : ০২ মে ২০২২, ০৯:৩৪ পিএম

এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে কুষ্টিয়া সদর উপজেলায় আওয়ামী লীগের দুই পক্ষে সংঘর্ষে চারজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ১৫-২০ জন আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে ২ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

সোমবার (২ মে) বিকেলে সদর উপজেলার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থানার ঝাউদিয়া ইউনিয়নের আস্থানগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- আস্থানগর গ্রামের দাউদ মণ্ডলের ছেলে লাল্লু (৪০), মৃত হাশেম আলীর ছেলে কাশেম (৫০), মৃত আবুল আলীর ছেলে রহিম (৫৫) এবং আজিজের ছেলে মতিয়ার।

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) গোলাম মওলা ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “স্থানীয় বখতিয়ার ও ফজলু গ্রুপের মধ্যে আধিপত্য বিস্তার ও সামাজিক দ্বন্দ্বের জেরে বিকেলে সংঘর্ষ হয়। এতে উভয় গ্রুপের ৪ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন ১৫ জন। আহতদের মধ্যে দুইজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।”

তিনি আরও বলেন, “এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। নিহতদের লাশ উদ্ধার ও আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অপরাধীদের চিহ্নিত ও গ্রেপ্তার করতে এলাকায় পুলিশের অভিযান শুরু করা হয়েছে।”

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থানার ঝাউদিয়া ইউনিয়নের আস্থানগর এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে কেরামত ও ফজলু মণ্ডল গ্রুপের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। এরই ধারাবাহিকতায় সোমবার বিকেলে কেরামত ও ফজলু মণ্ডল গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে ফজলু মণ্ডলের সমর্থক লাল্টু, মতিয়ার ও কাশেমসহ মোট চারজন নিহত হয়েছেন। তাদের মরদেহ কুষ্টিয়া ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে রাখা হয়েছে।  এ ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন কয়েকজন।


About

Popular Links