Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

এক চুলায় ৪০, দুই চুলায় ১০৫ টাকা বাড়লো গ্যাসের দাম

এক চুলার বর্তমান দাম ৯৫০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৯৯০ টাকা, দুই চুলা ৯৭৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১ হাজার ৮০ টাকা করা হয়েছে

আপডেট : ০৫ জুন ২০২২, ০৫:০৩ পিএম

আবাসিক গ্রাহকদের ক্ষেত্রে গ্যাসের এক চুলার বর্তমান দাম ৯৫০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৯৯০ টাকা, দুই চুলা ৯৭৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১ হাজার ৮০ টাকা করা হয়েছে। গ্রাহক পর্যায়ে প্রাকৃতিক গ্যাসের দাম প্রতি ঘনমিটারে ৯ টাকা ৭০ পয়সা থেকে ২২.৭৮% বৃদ্ধি করে প্রতি ঘনমিটার ১১ টাকা ৯১ পয়সা করা হয়েছে। প্রি-পেইড মিটার ব্যবহারকারী গ্রাহকদের বর্তমান দর ১২ টাকা ৬০ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ১৮ টাকা করা হয়েছে। তবে বাড়েনি সিএনজির দাম।

রবিবার (৫ জুন) বিকেলে এক ভার্চুয়াল সম্মেলনের মাধ্যমে নতুন দাম ঘোষণা করেন বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের (বিইআরসি) ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আবু ফারুক।

১ জুন থেকে নতুন দাম কার্যকর হচ্ছে। অর্থাৎ চলতি মাসের শেষেই গ্রাহকদের এই বাড়তি বিল দিতে হবে।

সার উৎপাদনে সবচেয়ে বেশি ২৫৯%, বৃহৎ শিল্পে ১১.৯৬%, বিদ্যুতে ১২ শতাংশ, ক্যাপটিভে ১৫.৫ % বাড়ানো হয়েছে গ্যাসের দাম।

প্রতি ঘনমিটার গ্যাসের দাম (সরকারি, আইপিপি ও রেন্টাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র) ৫ টাকা ২ পয়সা, ক্যাপটিভের (ক্যাপটিভ পাওয়ার প্ল্যান্ট, ক্ষুদ্র বিদ্যুৎ কেন্দ্র এবং বাণিজ্যিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র) দাম ১৬ টাকা, সারে ১৬, শিল্পখাতের মধ্যে বড় শিল্পে ১১ টাকা ৯৮ পয়সা, মাঝারি শিল্পে ১১ টাকা ৭৮ পয়সা এবং ক্ষুদ্র, কুটির ও অন্যান্য শিল্পে ১০ টাকা ৭৮ পয়সা করা হয়েছে।

এছাড়া চা শিল্পে ১১ টাকা ৯৩ পয়সা, বাণিজ্যিক (হোটেল, রেস্টুরেন্ট এবং অন্যান্য) ২৬ টাকা ৬৪ পয়সা করা হয়েছে।

লিখিত বক্তব্যে আবু ফারুক বলেন, “বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন আইন, ২০০৩ এর ধারা ২২(খ) ও ৩৪ এ প্রদত্ত দায়িত্ব ও ক্ষমতাবলে কমিশন কর্তৃক ভোক্তাপর্যায়ে প্রাকৃতিক গ্যাসের মূল্যহার পুনর্নির্ধারণ করা হয়েছে। পেট্রোবাংলা-র এলএনজি আমদানি ব্যয় মেটাতে জ্বালানি নিরাপত্তা তহবিল হতে ৩ হাজার ৩০০ কোটি টাকা, গ্যাস সঞ্চালন ও বিতরণ কোম্পানিগুলোর কর-পরবর্তী নিট পুঞ্জিভূত মুনাফার প্রায় ১৭ ভাগ হিসেবে ২ হাজার ৫০০ কোটি টাকা এবং সরকারের দেওয়া ভর্তুকি ৬ হাজার কোটি টাকাসহ সব মিলিয়ে ১১ হাজার ৮০০ কোটি টাকা প্রদান গণ্য করে এই দাম নির্ধারণ করা হলো।”

আবাসিকের প্রি-পেইড মিটারের জুন মাসে রিচার্জ করা হবে কীভাবে জানতে চাইলে মকবুল ই ইলাহি বলেন, “গ্রাহকদের দ্রুত রিচার্জ করে আপডেট করে নিতে হবে। আর মিটারবিহীনরা জুনের শেষে এই আদেশ অনুযায়ী বিল দেবেন।”

About

Popular Links