Wednesday, May 29, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

শাবি ক্যাম্পাসে শিক্ষার্থী খুনের ঘটনায় মামলা

ছুরিকাঘাতে বুলবুল আহমেদ নিহত হওয়ার ঘটনায় সোমবার রাতে উত্তাল হয়ে উঠে শাবি ক্যাম্পাস

আপডেট : ২৬ জুলাই ২০২২, ০১:১৯ পিএম

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (শাবি) শিক্ষার্থী বুলবুল আহমেদকে ক্যাম্পাসে ছুরিকাঘাতে খুনের ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন মামলা করেছে।

সোমবার (২৫ জুলাই) মাঝরাতে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের জালালাবাদ থানায় অজ্ঞাতনামা কয়েকজনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার মুহম্মদ ইশফাকুল হোসেন। 

গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (গণমাধ্যম) বিএম আশরাফ উল্যাহ।

মামলার এজাহারে বলা হয়, সোমবার রাত পৌনে ৮টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের লোকপ্রশাসন বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী বুলবুল তার বন্ধুদের সঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয়ের গাজী কালুর টিলায় বেড়াতে গেলে একাধিক দুষ্কৃতিকারীর কবলে পড়েন এবং তাদের উপর্যুপরি ছুরিকাঘাতে আহত হন। রক্তাক্ত অবস্থায় বুলবুলকে প্রথমে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টারে এবং পরবর্তীতে এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মামলার প্রাথমিক তথ্য বিবরণীতে জানা যায়, পেনাল কোডের ৩০২/০৪ ধারায় করা মামলাটি তদন্তের জন্য জালালাবাদ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) দেবাশীষ দেবকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।


আরও পড়ুন- শাবি ক্যাম্পাসে ‘ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে’ শিক্ষার্থীর মৃত্যু


এদিকে, ছুরিকাঘাতে বুলবুল আহমেদ নিহত হওয়ার ঘটনায় রাতে উত্তাল হয়ে ওঠে শাবি ক্যাম্পাস। শিক্ষার্থী হত্যার ঘটনার প্রতিবাদে দিবাগত রাত ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়ক অবরোধ করে রাখে।

এর আগে, সোমবার সন্ধ্যা থেকে শাবির শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসে সভা-সমাবেশ করতে থাকে। এ ঘটনায় ছাত্রলীগও ক্যাম্পাসে মিছিল করছে। অন্যদিকে, সাধারণ শিক্ষার্থীদের ব্যানারে নিরাপদ ক্যাম্পাসের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন মিছিল-মিটিং করছে। তারা গোলচত্বর থেকে মিছিল নিয়ে আবাসিক হলগুলো প্রদক্ষিণ করছে।

শাবির সহকারী প্রক্টর আবু হেনা পহিল জানান, নিহত বুলবুল আহমেদ ছাত্রলীগের কর্মী ছিলেন। তবে তিনি সংগঠনের কোনো পদে ছিলেন না। ছাত্রলীগ ঘটনার পরপরই বিশ্ববিদ্যালয়ের গোলচত্বর থেকে মিছিল বের করে মূল গেটে আসে। এরপর সেখান থেকে পুনরায় গোলচত্বরে গিয়ে অবস্থান নেয়।

তবে বুলবুল হত্যার প্রতিবাদে গতকাল রাতে আন্দোলনে থাকা শিক্ষার্থীদের ৪ দফা দাবির বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন লিখিত দেবে এমন আশ্বাসে বুধবার বিকেল ৫টা পর্যন্ত প্রতিবাদ কর্মসূচি স্থগিত রাখা হয়েছে। দাবিগুলো হলো- বুলবুল আহমদের অবিলম্বে খুনিদের গ্রেপ্তার করে বিচারের আওতায় আনা হবে, নিহত বুলবুলের পরিবারকে যথাযথ ক্ষতিপূরণ দিতে হবে, সমগ্র শাবিপ্রবি ক্যাম্পাসকে নিরাপদ ঘোষণা করে অতিরিক্ত নিরাপত্তারক্ষী নিয়োগ দিতে হবে এবং হত্যাকাণ্ডের দায় নিয়ে শাবিপ্রবি প্রশাসন বুলবুলের পরিবার ও শিক্ষার্থীদের কাছে ক্ষমা চাইবে।

About

Popular Links