Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ঠাকুরগাঁওয়ে ইউপি অফিসে তালা দেওয়ার অভিযোগ প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে

পরিষদে তালা লাগানোর আদেশ দেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেছেন প্রধান শিক্ষক জামাল উদ্দিন

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২২, ০৫:০৬ পিএম

ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদে তালা ঝুলিয়ে দখলের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে জামাল উদ্দিন নামের এক প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে। জামাল উদ্দিন হরিপুর সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক।

শনিবার (৩০ জুলাই) বিকেলে হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে দেখা যায়, পরিষদ ভবনের প্রতিটি রুমে তালা দেওয়া। পরিষদের কর্মকর্তা কর্মচারীরা বাহিরে অবস্থান করছেন, ঘুরে যাচ্ছেন সেবা নিতে আসা সাধারণ মানুষ।

পরিষদ ভবনে তালা দেওয়া থাকায় সকল প্রকার ইউপি সেবা বাধাগ্রস্ত হচ্ছে বলে অভিযোগ করছেন চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম ডিলার।

এ বিষয়ে হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদে দায়িত্বরত সচিব মিজানুর রহমান ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “পরিষদে তালা দেওয়া থাকায় আমরা বাইরে অবস্থান করছি। বিষয়টা দুঃখজনক। ইউপির স্বাভাবিক কার্যক্রম বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। দোষীদের কঠোর শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।”

হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম ডিলার ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “৩০ বছরের এই পরিষদের জমি তারা নিজেদের বলে দাবি করছেন। যদিও এই দাবির কোনো ভিত্তি নেই।”

তিনি আরও বলেন, “শুক্রবার সকালে শিক্ষক জামাল উদ্দিনের নেতৃত্বে কিছু লোকজন ইউনিয়ন পরিষদ প্রাঙ্গণে জড়ো হন। স্কুলের পিয়ন নুরুল ইসলাম ইউনিয়ন পরিষদসহ আমাদের আরও আটটি দোকানে তালা দেন।”

জানতে চাইলে হরিপুর সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের পিয়ন নুরুল ইসলাম ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “আমাকে প্রধান শিক্ষক আদেশ করেছেন। তাই আমি তালা লাগিয়েছি।”

তবে পরিষদে তালা লাগানোর আদেশ দেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেন প্রধান শিক্ষক জামাল উদ্দিন। তিনি বলেন, “তারা অবৈধভাবে হরিপুর সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের জমিতে আছে। কিছু অন্যায়ের প্রতিরোধে অন্যায়ের আশ্রয় নিতে হয়। তাই আমি বেদখলে থাকা আটটি দোকানে তালা দিতে বলেছি। পরিষদে তালা দেওয়ার নির্দেশ আমি দেইনি।”

হরিপুর উপজেলার নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) বহ্নি আক্তার শিখা ঢাকা ট্রিবিউনকে বলেন, “বিষয়টি নিয়ে আমার কাছে অভিযোগ এসেছে। প্রধান শিক্ষককে আমি তালা খুলে দিতে বলেছি। বিষয়টি দ্রুতই সমাধান করা হবে।”

About

Popular Links