Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

‘নদীখেকো’ চেয়ারম্যান সেলিম খানের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

অনুসন্ধান কর্মকর্তার প্রতিবেদনের ভিত্তিতে কমিশন সভায় সেলিম খানের বিরুদ্ধে মামলার সিদ্ধান্ত হয়

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২২, ০৭:০৬ পিএম

৩৪ কোটি টাকার জ্ঞাত আয়বহির্ভূত অবৈধ সম্পদ অর্জনের দায়ে চাঁদপুর সদরের ১০ নম্বর লক্ষ্মীপুর ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান সেলিম খানের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

রবিবার (৩১ জুলাই) দুদকের সচিব মাহবুব হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। বাংলা ট্রিবিউনের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

দুদকের সচিব মাহবুব হোসেন ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের জানান, প্রাথমিক অনুসন্ধানের পর দুদক সেলিম খানের বিরুদ্ধে জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগে সম্পদ বিবরণী চায়। পরে সেলিম খান ৬৬ লাখ টাকার সম্পদের হিসাব জমা দেন। কিন্তু দুদকের অনুসন্ধানে তার ৩৪ কোটি ৫৩ লাখ ৮১ হাজার ১১৯ টাকার সম্পদের তথ্য পাওয়া যায়।

অনুসন্ধান কর্মকর্তার প্রতিবেদনের ভিত্তিতে কমিশন সভায় সেলিম খানের বিরুদ্ধে মামলার সিদ্ধান্ত হয়।

এর আগে ৪ জুন বিভিন্ন অপকর্মের মাধ্যমে দলীয় ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ করার দায়ে সেলিম খানকে আওয়ামী লীগ থেকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার করা হয়। সেলিম খান চাঁদপুর সদর উপজেলার ১০ নম্বর লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলেন। তার বিরুদ্ধে পদ্মা ও মেঘনা নদী থেকে অবাধে বালু উত্তোলন এবং চাঁদপুর বিজ্ঞান প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের জমি অধিগ্রহণকে কেন্দ্র করে কেলেংকারিসহ বিভিন্ন অভিযোগ রয়েছে।

উল্লেখ্য, চাঁদপুরের নদী অঞ্চলে শত শত ড্রেজার বসিয়ে গত কয়েক বছর ধরে অপরিকল্পিতভাবে বালু উত্তোলনের অভিযোগ রয়েছে ইউপি চেয়ারম্যান সেলিম খানসহ একটি চক্রের বিরুদ্ধে। এমনকি অনুমতি ছাড়াই চেয়ারম্যান বছরের পর বছর বালু বিক্রি করেছেন বলে জানিয়েছে স্থানীয় প্রশাসন। যা পরবর্তীতে উচ্চ আদালতের নির্দেশে বন্ধ হয়। এছাড়া লক্ষ্মীপুর ইউনিয়নে চাঁদপুর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের জমি অধিগ্রহণের সুযোগে ৩৬০ কোটি টাকা লোপাটের চেষ্টায় সেলিম খানের বিরুদ্ধে একটি মামলা উচ্চ আদালতে চলমান রয়েছে। অভিযানে নেমে এসব অভিযোগের প্রাথমিক সত্যতা পায় দুদক।

About

Popular Links