Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মনোনয়ন পত্র জমা দিতে গিয়ে বিএনপির দুই গ্রুপের সংঘর্ষে আহত ১০

এ সময় ককটেল বিস্ফোরণ ও গাড়ি ভাংচুরের ঘটনাও ঘটেছে

আপডেট : ২৮ নভেম্বর ২০১৮, ০৪:১০ পিএম

মুন্সিগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী উপজেলায় বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মিজানুর রহমান সিনহা ও আব্দুস সালাম আজাদের মনোনয়পত্র জমা দেওয়াকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে ১০ জন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় ১০ জনকে আটক করে পুলিশ এ সময় ককটেল বিস্ফোরণ ও গাড়ি ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার দুপুর ১২ টার দিকে টঙ্গীবাড়ী বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, বিএনপির কেন্দ্রীয় কোষাধ্যক্ষ মিজানুর রহমান সিনহা ও কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম আজাদের পক্ষে জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি রিপন মল্লিকের লোকজনের সাথে টঙ্গীবাড়ি বাজার সংলগ্ন কাজী প্লাজা এলাকায় সংঘর্ষ বাঁধে। এতে উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়। গাড়ি ভাংচুরসহ ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে টঙ্গীবাড়ি উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আক্তার মোল্লা ও বেতকা ইউনিয়ন যুবদলের সাধারণ সম্পাদক রিগ্যান শিকদারসহ ১০ জনকে আটক করেছে। আটককৃত অন্যান্যরা হলেন, শাহাদাত, আমির হোসেন, বিপ্লব, জনি, এরশাদ, মিজানুর, শহীদ।

টঙ্গীবাড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ্‍ মোহাম্মদ আওলাদ হোসেন জানান, ঘটনার পরপরই পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে। এ ঘটনায় অন্তত ১০ জনকে আটক করা হয়। এবং দেশীয় অস্ত্রসহ ককটেল উদ্ধার করা হয়।

এ ব্যাপারে বিএনপির কেন্দ্রীয় কোষাধ্যক্ষ মিজানুর রহমান সিনহা জানান, "বিএনপির মধ্যে অভ্যন্তরীণ কোন কোন্দল নেই।"

সংঘর্ষের ঘটনায় মামলা করবেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, "সবকিছু দেখে ঠিক করব মামলা করব কিনা। আমি এখনও ঠিকভাবে জানতে পারিনি সংঘর্ষে কতজন আহত হয়েছে।"

অন্যদিকে, বিএনপির সহসভাপতি রিপন মল্লিককে ফোন দিলে তিনি ফোন ধরেননি।

About

Popular Links