Monday, May 20, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

গার্ডার দুর্ঘটনা: ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-ক্রেনচালকের বিরুদ্ধে মামলা

রাজধানীর উত্তরায় বাস র‌্যাপিড ট্রানজিট (বিআরটি) প্রকল্পের আওতায় নির্মাণাধীন উড়াল সড়কের গার্ডার পড়ে পাঁচজন নিহত হন

আপডেট : ১৬ আগস্ট ২০২২, ১২:০৯ পিএম

রাজধানীর উত্তরায় বাস র‌্যাপিড ট্রানজিট (বিআরটি) প্রকল্পের আওতায় নির্মাণাধীন উড়াল সড়কের গার্ডার পড়ে পাঁচজন নিহতের ঘটনায় চীনা ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান গ্যাঝুবা গ্রুপ করপোরেশনের (সিজিজিসি) সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ও ক্রেনচালকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

অবহেলাজনিত মৃত্যুর অভিযোগে ওই ঘটনায় নিহত ফাহিমা ও ঝর্নার ভাই আফরান মণ্ডল বাবু বাদী হয়ে মঙ্গলবার (১৬ আগস্ট) ভোররাতে মামলাটি দায়ের করেন।

গণমাধ্যমকে মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উত্তরা পশ্চিম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসিন।

তিনি বলেন, “ক্রেনের চালক, সিজিজিসি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ও নিরাপত্তায় দায়িত্বপ্রাপ্ত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। মামলার তদন্ত করা হচ্ছে এবং জড়িতদের গ্রেপ্তারে অভিযান চালানো হচ্ছে।”



উল্লেখ্য, সোমবার বিকেলে উত্তরায় জসীমউদ্দীন মোড়সংলগ্ন সড়কে বাস র‌্যাপিড ট্রানজিট (বিআরটি) স্থাপনা প্রকল্পের একটি গার্ডার প্রাইভেটকারের ওপর পড়ে। এতে ওই প্রাইভেটকারের পাঁচ আরোহী নিহত এবং দুই আরোহী হন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, প্রকল্পের কাজ চলাকালীন একটি গার্ডার ক্রেন দিয়ে তোলা হচ্ছিল। হঠাৎ ক্রেনটি গার্ডারসহ কাত হয়ে যায় এবং নিচ দিয়ে যাওয়া একটি প্রাইভেটকারের ওপর পড়ে। এতে প্রাইভেটকারটি দুমড়ে-মুচড়ে যায়। 

প্রাইভেটকারে আরোহী ছিলেন সাতজন। ছিলেন নববিবাহিত হৃদয়ের বাবা রুবেল (৬০), হৃদয়ের শাশুড়ি ফাহিমা (৪০), কনে রিয়া মনির খালা ঝর্ণা (২৮), ঝর্ণার দুই সন্তান জান্নাত (৬) ও জাকারিয়া (২)। ঘটনাস্থলেই তাদের মৃত্যু হয়েছে। শুধু বেঁচে আছেন হৃদয় ও রিয়া।

জানা গেছে, গত শনিবার (১৩ আগস্ট) রিয়া মনি ও হৃদয়ের বিয়ে হয়। সোমবার বৌভাতের অনুষ্ঠান শেষে বাড়িতে ফেরার পথে উত্তরায় সড়ক দুর্ঘটনায় শিকার হয় পরিবারটি।

About

Popular Links