Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মামার লাঠির আঘাতে প্রাণ গেল দুই ভাগ্নের

অভিযুক্ত রফিকুল ইসলাম ও তার লোকজন কাওসার ও তার ভাই মিল্টনকে লাঠি দিয়ে বেধড়ক পেটায়

আপডেট : ০৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ০৪:২৭ পিএম

সিরাজগঞ্জের চৌহালীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধ ও দ্বন্দ্বের জের ধরে নিজের মামা তাদের লোকজনের বেধড়ক পিটুনিতে কাওসার রহমান (২৮) ও মিল্টন রহমান (৩৫) নামে দুই ভাইয়ের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার (৮ ডিসেম্বর) ভোরে ঢাকায় নেবার পথে গুরতর আহত কাওসার ও চিকিৎসারত অবস্থায় দুপুরে মিল্টন মারা যান।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে কাওসার রহমান ও তার পরিবারের সদস্যদের সাথে তার আপন মামা রফিকুল ইসলাম বকুলের দীর্ঘদিন ধরেই বিরোধ চলে আসছিল। শুক্রবার (৭ ডিসেম্বর) ক্ষেতের সেচকাজকে কেন্দ্র করে দুই পরিবারের মধ্যে তুমুল ঝগড়ার বাধার এক পর্যায়ে রফিকুল ইসলাম ও তার লোকজন কাওসার ও তার ভাই মিল্টনকে লাঠি দিয়ে বেধড়ক পেটায়।

এরপর গুরুতর আহত কাওসার ও মিল্টনকে প্রথমে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে শনিবার ভোর রাতে তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হয়। কাওসার পথিমধ্যে এবং দুপুরে ঢাকায় চিকিৎসারত অবস্থায় মিল্টন মারা যান।

এ ঘটনায় নিহতদের মা হায়াতন নেছা বাদী হয়ে তার চাচাতো ৩ ভাই নাসির উদ্দিন, শহিদুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম বকুল সহ মোট ৫ জনকে আসামী করে হত্যামামলা দায়ের করেছেন। তবে, এখনও পর্যন্ত পুলিশ নিহতের ৩ মামাকে আটক করতে পারেনি। তবে, গ্রেফতার করা হয়েছে মামলার আরেক আসামী অভিযুক্ত বকুলের স্ত্রী এবং খাসপুকুরিয়া ইউনিয়নের ইউপি সদস্য শিরিন সুলতানাকে।  

চৌহালী থানার ওসি জাহাঙ্গীর আলম এ বিষয়ে বলেন, “পারিবারিক কলহের জের ধরে এই হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হয়েছে। নিহতের মরদেহ উদ্ধারসহ ময়না তদন্তের জন্য সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে”। 

মামলার অন্য আসামীদের আটকের জন্য পুলিশ জোর প্রচেষ্টা চালাচ্ছে বলেও জানিয়েছেন অসি জাহাঙ্গীর আলম।

About

Popular Links