Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

যমুনায় সারবোঝাই কার্গোর তলায় ছিদ্র, সরানো হচ্ছে পণ্য

সারবোঝাই কার্গোটি মোংলা বন্দর থেকে সিরাজগঞ্জের বাঘাবাড়িতে যাচ্ছিল 

আপডেট : ০৫ জানুয়ারি ২০২৩, ০৩:৪৮ পিএম

মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলার যমুনা নদীতে নোঙর করে একটি সারবোঝাই কার্গো জাহাজের তলা ছিদ্র হয়ে গেছে। এতে এম টি এবাদত নামে জাহাজটি পানি ঢুকে কাত হয়ে যায়। তলদেশ ছিদ্র হওয়ায় জাহাজে থাকা সার সরিয়ে নদীর তীরে রাখা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৫ জানুয়ারি) সকালে উপজেলার অন্বয়পুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

সূত্র জানায়, সারবোঝাই কার্গোটি মোংলা বন্দর থেকে সিরাজগঞ্জের বাঘাবাড়িতে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে যমুনা নদীতে নাব্য সংকটের কারণে সেটি নোঙর করে রাখা হয়। 

কার্গো জাহাজের মাস্টার হাসান আলী জানান, এ ঘটনায় সারের কোনো ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। সারগুলো অন্য জাহাজে করে গন্তব্যে নেওয়া হবে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, গত ৩১ ডিসেম্বর বাগেরহাটের মোংলা বন্দর থেকে ৬৫০ মেট্রিক টন এমওপি সার নিয়ে এমভি এবাদত নামে জাহাজটি বাঘাবাড়ির উদ্দেশে রওনা হয়। যমুনায় নাব্য সঙ্কটের কারণে নোঙর করে রাখা অবস্থায় বৃহস্পতিবার সকাল ৮টার দিকে কর্মীরা জাহাজের ভেতরে পানি ঢোকার বিষয়টি টের পান। দেরি না করে সুকানিসহ সবাই জাহাজের ভেতর থেকে সারগুলো সরিয়ে তীরে নিতে শুরু করেন।

পাশাপাশি নৌযানটির ভেতর থেকে পানি সরানোর কাজও শুরু হয়।

মাস্টার হাসান আলী বলেন, জাহাজটি ভেতরে তিন ভাগে বিভক্ত। নিচের পাটাতন ছিদ্র হয়ে ইঞ্জিন কক্ষে পানি ঢুকে পড়ে। তবে বাকি অংশে পানি ঢুকতে না পারায় সারেরও কোনো ক্ষতি হয়নি।

আকিজ গ্রুপের মালিকানাধীন এসব সার পাবনার বাঘাবাড়ি বন্দরে নেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

শিবালয় থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ নূর এ আলম বলেন, “নদীর তীরে নোঙর করা কার্গো জাহাজটিতে সামান্য পানি ঢুকে কাত হয়। তবে এতে কোনো হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতি হয়নি।”

বিআইডব্লিউটিএ বন্দর কর্মকর্তা সাজ্জাদুর রহমান জানান, সারবোঝাই কার্গো জাহাজটি থেকে পণ্যগুলো আনলোড করা হচ্ছে। সারের কোনো ক্ষয়ক্ষতি হয়নি।

About

Popular Links