Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মিঠামইন হাওরে এলিভেটেড সড়ক নির্মাণ করবে সরকার

একনেক সভায় এ অনুমোদন দেওয়া হয়

আপডেট : ১৭ জানুয়ারি ২০২৩, ১০:৩১ পিএম

জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক) হাওর অঞ্চলে মসৃণ ও নিরবচ্ছিন্ন সড়ক যোগাযোগ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কিশোরগঞ্জ জেলার মিঠামইন উপজেলা সদর থেকে করিমগঞ্জ উপজেলা পর্যন্ত একটি এলিভেটেড সড়ক নির্মাণের জন্য পাঁচ হাজার ৬৫১.১৩ কোটি টাকার একটি প্রকল্প অনুমোদন করেছে।

মঙ্গলবার (১৭ জানুয়ারি) রাজধানীর এনইসি সম্মেলন কক্ষে একনেক চেয়ারম্যান ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে একনেক সভায় এ অনুমোদন দেওয়া হয়।

এক সংবাদ সম্মেলনে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেন, “আজকের সভায় মোট ১০ হাজার ৬৪০.৫৮ কোটি টাকা ব্যয়ের মোট ১১টি প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। মোট ব্যয়ের মধ্যে সাত হাজার ৮২৭.৫০ কোটি টাকা বাংলাদেশ সরকারের তহবিল থেকে এবং দুই হাজার ৮৮০.১৮ কোটি টাকা বিদেশি উৎস থেকে প্রকল্প সহায়তা হিসাবে নেওয়া হবে।”

তিনি বলেন, “১১টি প্রকল্পের মধ্যে ছয়টি নতুন প্রকল্প এবং পাঁচটি সংশোধিত প্রকল্প।”

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, “এলিভেটেড সড়ক নির্মাণ প্রকল্পের মূল উদ্দেশ্য মিঠামইন সদর থেকে করিমগঞ্জ উপজেলা পর্যন্ত মিঠামইন সেনানিবাসের সঙ্গে হাওর অঞ্চলে মসৃণ সড়ক যোগাযোগ স্থাপন করা।”

এছাড়া কিশোরগঞ্জ সদর, ঢাকা, সিলেট ও অন্যান্য জেলার সঙ্গে ইটনা, মিঠামইন ও অষ্টগ্রাম উপজেলার সব আবহাওয়া উপযোগী সড়ক যোগাযোগ মসৃণ ও নিরবচ্ছিন্নভাবে চালু করতে নাকভাঙ্গা সার্কেল থেকে মরিচখালী বাজার পর্যন্ত প্রায় ১৩.৪০ কিলোমিটার বিদ্যমান সড়ক প্রশস্ত করা হবে।

মূল প্রকল্পের কার্যক্রমের মধ্যে রয়েছে ১৫.১৩ কিলোমিটার এলিভেটেড সড়ক নির্মাণ, ১৩.৪০ কিলোমিটার বিদ্যমান সড়ক প্রশস্তকরণ, চারটি সেতু নির্মাণ, ১৩টি টোল প্লাজা নির্মাণ, টোল মনিটরিং ভবন ও চেকপোস্ট নির্মাণ এবং ১৩ কিলোমিটার অস্থায়ী সাবমার্সিবল সড়ক নির্মাণ।

ব্রিফিংয়ে পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী ড. শামসুল আলম, পরিকল্পনা কমিশনের সদস্য ও সংশ্লিষ্ট সচিবরা উপস্থিত ছিলেন।

About

Popular Links