Sunday, May 19, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ইমরান এইচ সরকারের প্রচার গাড়িতে হামলা

ইমরান এইচ সরকার জানান, অটোরিকশাটি পৌঁছালে বাজারে উপস্থিত জাতীয় পার্টির নেতা-কর্মীরা অটোরিকশা ও সেটির চালকের ওপর হামলা চালায়। এতে চালক হাসান গুরুতর আহত হন।

আপডেট : ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮, ১১:০২ পিএম

কুড়িগ্রাম-৪ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ডা.ইমরান এইচ সরকারের নির্বাচনী প্রচার গাড়িতে হামলার ঘটনা ঘটেছে। আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজিবপুর বাজার সংলগ্ন সড়কে এ ঘটনা ঘটে। 

হামলায় প্রচার মাইকের অটোরিকশা চালক মো. হাসান আহত হয়েছেন। তাকে রাজিবপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি  করা হয়েছে। 

কুড়িগ্রাম-৪ আসনের জাতীয় পার্টির (জাপা) প্রার্থী সাবেক সেনা কর্মকর্তা মেজর (অব.) আশরাফ উদ দৌলা তাজের সমর্থকরা এ হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন ইমরান এইচ সরকার।

ইমরান এইচ সরকার জানান, অটোরিকশাটি পৌঁছালে বাজারে উপস্থিত জাতীয় পার্টির নেতা-কর্মীরা অটোরিকশা ও সেটির চালকের ওপর হামলা চালায়। এতে চালক হাসান গুরুতর আহত হন।

এ ঘটনার নিন্দা জানিয়ে ইমরান জানান, ‘এটা দুঃখজনক। আমাদের এ অঞ্চলে সাধারণত এ ধরনের ঘটনা ঘটে না। আমরা সর্বোচ্চ সৌহার্দ্যপূর্ণ অবস্থানে থাকতে চাই। তবে এমন ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটলে নেতাকর্মীদের শান্ত রাখা কষ্টসধ্য হয়ে পড়ে।’ 

এ ঘটনায় জাতীয় পার্টির প্রার্থী আশরাফ উদ দৌলা তাজ দুঃখ প্রকাশ করেছেন জানিয়ে ইমরান এইচ সরকার জানান, ‘আমি বিষয়টি জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তাকে জানিয়েছি। আমরা চাই,ভবিষ্যতে যেন এমন ঘটনা আর না ঘটে।’

এ বিষয়ে আশরাফ উদ দৌলা তাজ জানান, ‘ইমরান এইচ সরকার তিলকে তাল করছেন। আমরা সবাই  সহনশীলতার রাজনীতি করছি। আমার মিটিং চলছিল। আমি বক্তব্য দিচ্ছিলাম। সেসময় ইমরান এইচ সরকারের প্রচার মাইক সেখান দিয়ে যাচ্ছিল। আমার নেতা কর্মীরা মাইক বন্ধ করতে বললেও চালক মাইক বন্ধ করে কিছু দূর গিয়ে আবারও মাইক চালু করে। এর ফলে আমার অজান্তে কিছু নেতা-কর্মী উত্তেজিত হয়ে প্রচার মাইকে হামলা করেছে। তবে আমিও এ ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করছি।’ 

প্রয়োজনে আহত অটোরিকশাচালকের চিকিৎসা খরচ ও মাইকের ক্ষতিপূরণ দিতে চেয়েছেন জানিয়ে জাতীয় পার্টির এ প্রার্থী জানান, ‘আমার জ্ঞাতসারে এ ঘটনা ঘটেনি। আমি ইমরানের কাছে এটা বলেছি।’

এ ব্যাপারে রাজিবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রবিউল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রাজিবপুর বাজার এলাকায় জাতীয় পার্টির একটি কর্মী সভা চলছিল। এ সময় ইমরান এইচ সরকারের নির্বাচনী প্রচার মাইক পাশ দিয়ে যাচ্ছিল। জাতীয় পার্টির নেতা কর্মীরা মাইক বন্ধ করতে বললে চালক মাইক বন্ধ করে স্বল্প দূরে গিয়ে আবারও মাইক চালু করে। এর ফলে নেতা কর্মীরা উত্তেজিত হয়ে প্রচার মাইকটি ভেঙ্গে ফেলে এবং চালককে চড়-থাপ্পড় দেয়। 

এ ঘটনায় কাউকে আটক করা হয়নি বলে জানান ওসি।


About

Popular Links