Friday, May 24, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

দিনাজপুরে স্ত্রীকে হত্যার পর আলমারিতে লাশ লুকিয়ে রেখেছিলেন স্বামী

সারাদিন মরদেহ আলমারিতে রেখে রাতে থানায় আত্মসমর্পণ করে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার কথা জানান মনোয়ার হোসেন

আপডেট : ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ০১:১২ পিএম

পারিবারিক কলহের জেরে দিনাজপুর শহরে স্ত্রীকে হত্যার পর লাশ আলমারিতে লাশ লুকিয়ে রেখে থানায় এসে আত্মসমর্পণ করেছেন মনোয়ার হোসেন (৩৩) নামের এক ব্যক্তি। তার দেওয়া তথ্যমতে আলমারি থেকে স্ত্রী সুমাইয়া আক্তারের (২৭) মরদেহ উদ্ধার করেছে কোতয়ালি থানা পুলিশ।।

শুক্রবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) রাত সোয়া ১০টার দিকে মনোয়ার হোসেন থানায় এসে বিষয়টি জানান।

শহরের ছোট গুরগোলা এলাকার বাসিন্দা মনোয়ার হোসেন দীর্ঘদিন ধরেই তিনি শহরের ঘাসিপাড়া এলাকার একটি বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। সেখান থেকেই তার স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

কোতয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তানভিরুল ইসলাম ঢাকা ট্রিবিউনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, বৃহস্পতিবার রাতে পারিবারিক কলহের জের ধরে মনোয়ার তার স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেন। এরপর মরদেহ বাড়ির আলমারির ভেতরে রেখে দেন। সারাদিন পার হওয়ার পর রাতে মনোয়ার দিনাজপুর কোতোয়ালি থানায় এসে আত্মসমর্পণ করে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যা করেছেন বলে জানান। পরে তার দাওয়াত তথ্যমতে বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে আলমারির ভেতর থেকে হাসির মরদেহ উদ্ধার করে। 

তিনি আরও জানান, মরদেহ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠানো হয়। নিহতের ভাই ইসাহাক আলী এ ঘটনায় মামলা করেছেন।

About

Popular Links