Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মোবাইলে কথা বলছিলেন চালক, পাবনায় বাস খাদে পড়ে নিহত ৩

যাত্রীরা বারবার নিষেধ করলেও চালক ফোনে কথা বলতে বলতে বাস চালাচ্ছিলেন

আপডেট : ০২ জুন ২০২২, ০৮:১৯ পিএম

পাবনায় একটি যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে ৩ জন নিহত হয়েছে। এছাড়া অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আতাইকুলা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আমিনুল ইসলাম।

বৃহস্পতিবার (২ জুন) দুপুরে পাবনা সদর উপজেলার মধুপুর এলাকায় ঢাকা-পাবনা মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- পাবনার বেড়া উপজেলার পুটিগারা গ্রামের শিউলি খাতুন (২৮), সাথিয়া উপজেলার বৃহস্পতিপুর গ্রামের মোরশেদা বেগম (৭০) এবং সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার জংলিপুর গ্রামের বাসিন্দা ও বাসের হেলপার মো. মজিবর হোসেন (৩০)।

মো. আমিনুল ইসলাম বলেন, “বেলা সাড়ে ১২টার দিকে কাশিনাথপুর থেকে পাবনাগামী মোহাম্মদ এক্সপ্রেস বাসটি উল্টে রাস্তার পাশে খাদে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই ২ জন মারা যান এবং হাসপাতালে নেওয়ার পর আরও এক জনের মৃত্যু হয়।”

তিনি বলেন, “যাত্রীদের নিষেধ অমান্য করে বাস চালক মোবাইলে কথা বলতে বলতে অমনোযোগী হয়ে দ্রুত গতিতে গাড়ি চালাচ্ছিলেন। হঠাৎ একটি কালভার্টের উঁচু জায়গায় বাসটি ধাক্কা খেলে চালক গাড়ির নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন। এতে বাসটি উল্টে পাশের খাদে পড়ে যায়।”

আহত বাসযাত্রী মানিক হোসেন বলেন, “চালককে গাড়ির মধ্যে সব যাত্রী বারবার নিষেধ করলেও, তিনি না শুনে এক হাত দিয়ে স্টিয়ারিং ধরে আর এক হাত দিয়ে কানে মোবাইল ধরে কথা বলতে বলতে গাড়ি চালাচ্ছিলেন।”

ঘটনার পর পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহত ও আহতদের উদ্ধার করে। আহতদের মধ্যে ১২ জনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ বাসটি আটক করলেও চালক পালিয়ে গেছেন।

About

Popular Links